• শিরোনাম

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    শপথ নিতে চান ঐক্যফ্রন্টের যেসব এমপি

    ডেস্ক | ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ | ৮:১৩ পূর্বাহ্ণ

    শপথ নিতে চান ঐক্যফ্রন্টের যেসব এমপি

    জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচিত ৮ এমপির মধ্যে ৬ জনই শপথ নিচ্ছেন চলতি মাসে। জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ও বিএনপির একাধিক সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে নির্বাচিত সুলতান মোহাম্মদ মনসুর বলেছেন, বিএনপি এবং ঐক্যফ্রন্ট থেকে যারা নির্বাচিত হয়েছেন তাদের সঙ্গে আমি ব্যক্তিগত উদ্যোগে যোগাযোগ করেছি। প্রায় সবাই শপথ গ্রহণে আগ্রহী।

    বিএনপির বিভিন্ন সূত্র থেকে প্রাপ্ত খবরে জানা গেছে, বগুড়া-৬ আসন থেকে নির্বাচিত মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এবং বগুড়া-৪ আসনের মোশারফ হোসেন ছাড়া বাকি ৬ এমপিরা শপথ নিতে আগ্রহী। তারা যদি শপথ নেন সেক্ষেত্রে দলের শৃঙ্খলা ভঙ্গ বা ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে শপথ নেয়া যাবে না- এ ধরনেই আইনের বাধ্যবাধকতা তাদের কারোর জন্যই প্রযোজ্য হবে না। তারাই একটি সংসদীয় গ্রুপ হবে এবং এই গ্রুপের নেতা হবেন সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ। বিএনপির চারজন ছাড়াও ঐক্যফ্রন্টের মোকাব্বির খান শপথ নেয়ার ব্যাপারে আগ্রহী এবং তিনি সুলতান মোহাম্মদ মনসুরের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন বলে জানা গেছে।

    বিভিন্ন সূত্রে জানা যায় যে, সুলতান মোহাম্মদ মনসুরকে ব্যক্তিগতভাবে ডেকেছিলেন ড. কামাল হোসেন। শপথ নেয়ার জন্য তাকে ধীরে চলো নীতি অনুসরণ করার জন্য অনুরোধ করেছিলেন ড. কামাল। কিন্তু সুলতান মোহাম্মদ মনসুর মনে করছেন যে, তার এলাকার জনগণ তাকে নির্বাচিত করেছে এবং দ্রুত তাকে সংসদে গিয়ে এলাকার কথা বলা প্রয়োজন। তিনি একা সংসদে গেলে কিছু আইনগত জটিলতা হতে পারে বলে বিভিন্ন মহল থেকে কথাবার্তা হচ্ছিল। এজন্যই বিএনপি এবং জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট থেকে যারা নির্বাচিত হয়েছেন তাদের সকলের সঙ্গেই যোগাযোগ করেছেন। সকলেই মিলেই তারা শপথ গ্রহণ করবেন।

    সুলতান মনসুরের ঘনিষ্ঠ সূত্রগুলো বলছে, চলতি মাসের যে কোন সময় তিনি শপথ গ্রহণ করতে পারেন। দিনক্ষণ ঠিক করার জন্য আগামী শুক্রবার বিএনপি ও ঐক্যফ্রন্ট থেকে নির্বাচিত সুলতান মোহাম্মদ মনসুর (মৌলভীবাজার-২), মোকাব্বির খান (সিলেট-২), জাহেদুর রহমান (ঠাকুরগাঁও-৩), আমিনুল ইসলাম (চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২), হারুনুর রশিদ (চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩), আবদুস সাত্তার ভূইয়া (ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২) বৈঠকে বসবেন। বৈঠকে তারা সংসদে শপথ নেয়া এবং সংসদে তাদের ভূমিকা নিয়ে আলোচনা করবেন। আইনজ্ঞরা বলছেন, সুলতান মনসুর যদি এই ছয়জনকে নিয়ে সংসদে যোগ দিতে পারেন তাহলে তারাই সংসদে বিরোধী দলীয় গ্রুপ হবে। সেক্ষেত্রে সংসদে বিরোধী দলীয় গ্রুপের মর্যাদা দাবি করতে পারবেন সুলতান মোহাম্মদ মনসুর।

    বিভিন্ন সূত্র থেকে প্রাপ্ত খবরে জানা গেছে, গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সুলতান মোহাম্মদ মনুসরের যে সাক্ষাৎ হয়েছিল সেখানে প্রধানমন্ত্রী তাকে আশ্বস্ত করেছিলেন, সুলতান মনসুর যদি সংসদে গ্রুপ নিয়ে আসতে পারেন তাহলে তাকে সংসদীয় গ্রুপের মর্যাদা দেয়া হবে।

    এদিকে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা সুব্রত চৌধুরী বলেছেন, সুলতান মোহাম্মদ মনসুরের সংসদে যোগ দেয়ার ব্যাপারে কোন তথ্য তার কাছে নেই। তিনি যদি সংসদে যোগ দেন তাহলে সেটা তার ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত। এটা কোন দলীয় সিদ্ধান্ত নয়। তবে সুলতান মোহাম্মদ মনসুরের সঙ্গে ড. কামাল হোসেনের কোন বৈঠক হয়েছে কি না অথবা বৈঠকে কি সিদ্ধান্ত হয়েছে সে সম্পর্কে তিনি কিছু জানেন না বলে তিনি জানিয়েছেন।

    Comments

    comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫
    ১৬১৭১৮১৯২০২১২২
    ২৩২৪২৫২৬২৭২৮  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী