• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    আড়ংয়ের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ

    অনলাইন ডেস্ক: | ১৮ জুলাই ২০১৭ | ১১:৫৮ পূর্বাহ্ণ

    আড়ংয়ের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ

    ঈদের ১৫ দিন আগে একটি পোশাকের দাম দুই হাজার ৩৬১ টাকা হলেও ঠিক ১০ দিন পর ওই পোশাকটির দাম চার হাজার ২৫২ টাকা দাম রাখার অভিযোগ উঠেছে আড়ংয়ের বিরুদ্ধে। মাত্র ১০ দিনের ব্যবধানে একই পোশাকের মূল্য দ্বিগুণ করার অভিযোগ করেছেন এক গ্রাহক।


    ৯ জুলাই রোববার সামাজিক যোগযোগ মাধ্যম ফেসবুকে এই অভিযোগ করেছেন মোহতারিমা শিমলী নামের একজন। যিনি নিয়মিত আড়ংয়ের পণ্য ক্রয় করেন বলে জানিয়েছেন।

    ajkerograbani.com

    তিনি জানিয়েছেন, ঈদুল ফিতরের আগে ১৫ রোজার দিকে তার ভাবি একটা সেলোয়ার কামিজ ক্রয় করেন দুই হাজার ৩৬১ টাকা দিয়ে। কয়েকদিন পর (২৫ রোজার পর) সেই একই পণ্য কিনতে গেলে দাম দেখা যায় চার হাজার ২৫২ টাকায়। পরে তিনি আর সেই পণ্য ক্রয় করেননি বলে জানান।

    ফেসবুকে তিনি লিখেছেন, ‘আড়ং নিয়ে নেগেটিভ কিছু কখনও লিখব আগে ভাবিনি। হয়তো বা পোস্টটার জন্য অনেক কথাও শুনতে হবে যেমন- আমার মতো কাস্টমারের জন্যই আড়ং সুযোগ নিচ্ছে। সেই ছোটোবেলা থেকে আব্বু, চাচা, মামাদের দেখেছি আড়ংয়ের জামা কিনে দিতে। মান ভালো, সাইজ সবার জানা, পরে আরামদায়ক এবং সাশ্রয়ী হওয়ায় ঈদে উপহার দেওয়ার জন্য আড়ং ছিল বেস্ট। আমরা আড়ংয়ের নিয়মিত ক্রেতা।’

    ‘কিন্তু এবার ঈদে শপিং করে খুব ডিসঅ্যাপয়েন্টেড (হতাশ) হতে হলো। যমুনা ফিউচার পার্কের কাছে বাসা হওয়ায় ১৫ রোজা থেকে প্রতিদিন আড়ংয়ে যাওয়া হয়েছে। শ্বশুর বাড়ি, বাবার বাড়ির ৯৫ শতাংশ কেনাকাটা আড়ং থেকেই করেছি। এমন-কি ৯০ শতাংশ গিফটও আড়ং থেকেই পেয়েছি। যাই হোক, ১৫ রোজার দিকে আমার ভাবি একটা সেলোয়ার কামিজ কিনেন, যার দাম দুই হাজার ৩৬১ টাকা। ২৫ রোজার পর সেটাই চার হাজার ২৫২ টাকায় বিক্রি করে আড়ং।’

    শিমলী আরও লিখেছেন, ‘জামাটি প্রথমে দেখেই চিনে ফেলি এবং অভিযোগ করি যে ভুল ট্যাগ লাগানো কিনা! সংশ্লিষ্টরা চেক করে জানান ঠিক আছে। কাপড়, কালার এবং কাজ সব একই। কিন্তু দামই ভিন্ন!’

    ‘আমি আগেও অনেক শুনেছি ঈদের সময় শেষের দিকে নাকি আড়ং দামের ট্যাগ চেঞ্জ করে দেয়। যেহেতু এই সময় বাজেট একটু বেশি থাকে তাই বেশি দামের পণ্যের প্রতি ক্রেতারা ঝোঁকে। তবে আড়ংয়ের মতো ট্রাস্টেবল (বিশ্বস্ত) একটা শপ আমাদের সঙ্গে এমন প্রতারণা করবে আশা করিনি,’ লিখেছেন আড়ংয়ের এই নিয়মিত গ্রাহক।

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২
    ১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
    ২০২১২২২৩২৪২৫২৬
    ২৭২৮২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4755