• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    এশিয়ায় ঘুষ লেনদেনের শীর্ষে ভারত

    অগ্রবাণী ডেস্ক | ১৭ মার্চ ২০১৭ | ৪:৪৫ অপরাহ্ণ

    এশিয়ায় ঘুষ লেনদেনের শীর্ষে ভারত

    এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে ভারতে সবচেয়ে বেশি ঘুষ লেনদেন হয় বলে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল-টিআইর এক সমীক্ষায় উঠে এসেছে। ১৮ মাস ধরে এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগর অঞ্চলের ১৬টি দেশ, অঞ্চল ও টেরিটোরির ২০ হাজারের বেশি মানুষের সঙ্গে কথা বলে দুর্নীতি-বিষয়ক আন্তর্জাতিক নজরদারি সংস্থা টিআই এই প্রতিবেদন তৈরি করেছে বলে ফোর্বস ম্যাগাজিনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।


    সোমবার প্রকাশিত প্রতিবেদনে সবচেয়ে বেশি ঘুষ প্রচলনের দেশগুলোর ওপর আলোকপাত করা হয়েছে ফোর্বসের প্রতিবেদনে। এতে বলা হয়, সবচেয়ে বেশি ৬৯ শতাংশ ঘুষের হার ভারতে। দেশটিতে স্কুল, হাসপাতাল, পরিচয়পত্র, পুলিশ ও সেবা খাত-এই ছয় সরকারি সেবার পাঁচটির জন্য ঘুষ দিতে হয়েছে বলে জরিপে অংশগ্রহণকারীদের অর্ধেকের বেশি জানিয়েছেন।


    এই তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে আছে ভিয়েতনাম। দেশটিতে ৬৫ শতাংশ সেবার ক্ষেত্রে ঘুষ দিতে হয়। ভিয়েতনামিরা দুর্নীতিকে দেখছেন মহামারী হিসেবে। প্রতিবেদনে বলা হয়, যে ১৬টি দেশে সমীক্ষাটি চালানো হয়েছে তার মধ্যে ভিয়েতনামের (এবং মালয়েশিয়া) জনগণই দেশের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে সবচেয়ে বেশি হতাশা প্রকাশ করেছেন। প্রায় ৬০ শতাংশ মানুষ মনে করেন, দুর্নীতি দমনে সরকার তেমন কিছু করছে না।

    তালিকায় থাইল্যান্ড রয়েছে তৃতীয় অবস্থানে। সেখানে ঘুষের হার ৪১ শতাংশ। প্রতিবেদনে বলা হয়, সব পর্যায়ে এমনকি সরকারি কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ নিয়ে লড়ছে থাইল্যান্ড। এই প্রেক্ষাপটে দেশটিতে ক্ষমতাসীন সামরিক জান্তা ২০১৫ সালে দুর্নীতি দমন আইন কঠোর করে। অবশ্য থাইল্যান্ডের জনগণ এখন বেশ আশাবাদী। মাত্র ১৪ শতাংশ মনে করে, গত ১২ মাসে দেশে দুর্নীতি বেড়েছে। আর প্রায় ৭২ শতাংশের মতে, সরকার দুর্নীতিবিরোধী লড়াই বেশ ভালোভাবেই সামলাচ্ছে।

    চতুর্থ অবস্থানে থাকা পাকিস্তানে ঘুষের হার ৪০ শতাংশ। দেশটিতে সমীক্ষায় অংশ নেওয়াদের চার ভাগের তিন ভাগই মনে করেন, সব বা অধিকাংশ পুলিশই দুর্নীতিগ্রস্ত। যাদের পুলিশ বা আদালতে যেতে হয়েছে তাদের ১০ জনের মধ্যে সাতজনকেই ঘুষ দিতে হয়েছে। দুঃখজনকভাবে, এখানকার মানুষ মনে করে না যে অবস্থার পরিবর্তন হতে পারে-মাত্র এক তৃতীয়াংশ মানুষ মনে করেন সাধারণ মানুষের পরিবর্তন আনার সক্ষমতা রয়েছে।

    ঘুষের দিক দিয়ে মিয়ানমারে আছে পঞ্চম অবস্থানে। এখানে ঘুষের হার ৪০ শতাংশ। প্রতিবেদনে বলা হয়, সমীক্ষায় অংশগ্রহণকারীদের প্রায় অর্ধেক মনে করেন সব বা অধিকাংশ পুলিশ দুর্নীতিগ্রস্ত। ৪০ শতাংশ মনে করে বিচার বিভাগও দুর্নীতিগ্রস্ত।

    -এলএস

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    webnewsdesign.com

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4669