রবিবার ২৫শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

করোনা আতঙ্কে ঘরে বসে কাশিয়ানীবাসীর ‘নববর্ষ’ উদযাপন

লিয়াকত হোসেন লিংকন   |   মঙ্গলবার, ১৪ এপ্রিল ২০২০ | প্রিন্ট  

করোনা আতঙ্কে ঘরে বসে কাশিয়ানীবাসীর ‘নববর্ষ’ উদযাপন

করোনার প্রাদূর্ভাবে ঘরে বসে উৎসবহীন প্রাণের উৎসব ‘বাংলা নববর্ষ’ উদযাপন করছেন কাশিয়ানী উপজেলাবাসী।
বর্ষবরণে কাশিয়ানীতে নেই কোনো প্রস্তুতি ও আয়োজন। নেই কোন গানবাজনা, পান্থা-ইলিশ, রঙ-বেরঙের শাড়ি-পাঞ্জাবী পরে বন্ধু-বান্ধব নিয়ে মানুষের ঘোরাঘুরি।
প্রতি বছর এ দিনটিকে ঘিরে বৈশাখী মেলা, গ্রামীণ খেলা, পান্ত-ইলিশ, হালখাতা. শোভাযাত্রাসহ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হতো। পাশাপাশি বাঁশ, বেত, পাট, মৃৎ, চামড়াজাত কারুপণ্য ও শিশুদের খেলনা সামগ্রী গ্রামীণ মেলাকে বর্ণাঢ্য ও প্রান্তবন্ত করে তুলতো। মেলায় থাকতো গজা, জিলাপী, চানাচুর, ফুচকা, চটপটিসহ বিভিন্ন খাদ্যসামগ্রীর দোকান। এছাড়াও নাগরদোলা, পুতুলনাচ, যাত্রাপালা, সার্কাস, হরেক রকমের আয়োজন। কিন্তু এবার করোনাভাইরাসের কারণে নেই কোন আয়োজন।
করোনা পরিস্থিতিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে এবার ঘরে বসেই নববর্ষ পালনের আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। ফলে সারাদেশের ন্যায় কাশিয়ানীতেও ঘরে বসে নীরব-নিভৃতিতে পহেলা বৈশাখ উদযাপন করছেন এখানকার বাসিন্দারা। ঘর থেকে বের হয়নি কোন মানুষ।
উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় খোঁজ নিয়ে দেখা গেছে, করোনা মোকাবেলায় মানুষ সব ঘরবন্দি। ঘরে বসে নানা সংকটে দিন কাটছে তাদের। অন্যান্য বছর অনেক আগে থেকেই এই প্রাণের উৎসবের প্রস্তুতি শুরু হতো। সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনসহ সর্বত্র বিরাজ করতো বৈশাখী আমেজ। এবার সম্পূর্ণ ভিন্ন চিত্র। রাস্তা-ঘাট, মেলার মাঠগুলো জনমানবহীন। চারিদিকের পরিবেশ দেখে মনে হয় না, আজ পহেলা বৈশাখ। করোনা গোটা উপজেলার পরিবেশকে নিস্তব্ধ করে দিয়েছে। ক্রমেই মানুষের মাঝে বাড়ছে শঙ্কা।
সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব সাজ্জাদ হোসেন সিজু বলেন, ‘চৈত্রসংক্রান্তি ও পহেলা বৈশাখে কাশিয়ানী উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় বসতো মেলা। বাংলার ঐতিহ্যবাহী লোকসংস্কৃতির অন্যতম উপাদান হলো গ্রামীণ মেলা। মেলাকে কেন্দ্র করে উৎসবমুখর পরিবেশ সৃষ্টি হতো সর্বত্র। স্থানীয় কারুশিল্পীদের উৎপাদিত পণ্যসামগ্রী এ মেলায় কেনাবেচা হতো। কিন্তু কোথাও আজ পহেলা বৈশাখের কোন মেলা বা কোন আয়োজন নেই। চারিদিকে সুনশান নীরবতা, নেই কোন আনন্দ-উচ্ছ্বাস। মানুষের মাঝে শুধু হতাশা।’
এ বছরই প্রথম করোনা আতঙ্কের কারণে ভিন্নভাবে বাঙালির প্রাণের এই উৎসব পালিত হচ্ছে। ঘরে বসেই মানুষ পুরনো দিনের রীতি অনুসরণ করে পহেলা বৈশাখ বরণ করছেন।

Facebook Comments Box


Posted ৫:১০ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ১৪ এপ্রিল ২০২০

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১