মঙ্গলবার, মার্চ ১৭, ২০২০

করোনায় ফ্রান্সে মৃত ১৪৮, বিদ্যুৎ-গ্যাস বিল স্থগিত

ডেস্ক   |   মঙ্গলবার, ১৭ মার্চ ২০২০ | প্রিন্ট  

করোনায় ফ্রান্সে মৃত ১৪৮, বিদ্যুৎ-গ্যাস বিল স্থগিত

করোনায় ফ্রান্সে এখন পর্যন্ত ১৪৮ জন মৃত্যু হয়েছে। আক্রান্ত হয়েছেন ৬৬৩৩ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১২১০ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ২১ জনের। এই পরিসংখ্যান দ্রুত গতিতে বাড়ছে। করোনা মোকেবেলাকে যুদ্ধ পরিস্থিতি হিসেবে বর্ণনা করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাকরোঁ। পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত বিদ্যুৎ, গ্যাস ও পানিসহ সব ধরনের বিল স্থগিত করা হয়েছে। ম্যাকরোঁ বলেছেন, ফ্রান্সে কাউকে না খেয়ে মরতে দেয়া হবে না।
ম্যাকরোঁ জাতির উদ্দ্যেশে দেয়া ভাষণে বলেছেন, ‘করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে আমরা যুদ্ধে রয়েছি। অবশ্যই এটি একটি স্বাস্থ্য যুদ্ধ’। গুরুত্বপূর্ণ এ ভাষণে প্রেসিডেন্ট ম্যাকরোঁ, অবাধ চলাচলে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করেন।
ফ্রান্সে করোনাভাইরাস মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কায় নতুন এবং কঠোর ব্যবস্থা ঘোষণা করার সময়
প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘আমি আপনাদেরকে বাড়িতে থাকতে বলছি। আপনাকে শান্ত থাকতে বলছি। মঙ্গলবার, দুপুর থেকে আগামী ১৫ দিনের জন্য ফ্রান্সের সকল নাগরিক ঘরে থাকবেন’।
ভাষনে ম্যাকরোঁ আরও বলেন, সকলে চিকিৎসা নিতে পারবে এবং জরুরি প্রয়োজন হলে বাহিরে যেতে পারবে। তবে সরকারের দেয়া এ আদেশ অমান্য করলে তাকে শাস্তি পেতে হবে।
প্রেসিডেন্ট বলেন, প্রত্যেককে এ মহামারির বিস্তার রোধে একত্রিত হতে হবে। আপনি যদি আমাদের সহায়তা করতে চান, তাহলে ঘরে থাকুন এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের কথা শুনুন। এছাড়াও আগামী ৩০ দিনের জন্য ইউরোপিয়ান সকল বর্ডার বন্ধের ঘোষণা করেছেন যা আগামীকাল মঙ্গলবার দুপুর থেকে কার্যকর হবে।
আগামী রবিবার দেশটিতে স্থানীয় সরকার নির্বাচনের দ্বিতীয় ধাপের ভোট গ্রহন স্থগিত করেন ফরাসী প্রেসিডেন্ট। ম্যাকরোঁ বলেন, বিরোধীদলসহ অন্যান্য দলগুলোর সাথে আলোচনার পরিপেক্ষিতে আমরা দ্বিতীয় ধাপের ভোট গ্রহন স্থগিত করেছি।
সংবাদ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট ম্যাকরোঁ পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত সকল প্রকার বিদ্যুৎ, গ্যাস ও পানির বিল স্থগিত করেছেন। শুধু তাই নয়, দেশটির যেসকল নাগরিক বেনিফিট পাচ্ছেন তাদের অর্থ বৃদ্ধি করা হবে বলেও জানান তিনি।
ম্যাক্রন বলেছেন, “আমরা দেখেছি লোকেরা সরকারের পরামর্শকে সম্মান করে না, এরকম কাউকে পেলে কঠিন শাস্তি দেওয়া হবে। গুনতে হবে জরিমানাও। প্রেসিডেন্ট আরও জানিয়েছেন, ফ্রান্সে কাউকে না খেয়ে মরতে দেয়া হবে না। আর ছোট, বড় যত ধরনের ব্যবসায়ী আছেন তাদেরকে সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে।


Posted ৭:১৯ পিএম | মঙ্গলবার, ১৭ মার্চ ২০২০

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement