• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    কি করবো পুলিশতো, তাই স্বাক্ষর দিয়েছি

    | ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১ | ৮:১১ পূর্বাহ্ণ

    কি করবো পুলিশতো, তাই স্বাক্ষর দিয়েছি

    ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগর উপজেলার ফুলতলী এলাকায় নূরনবী (৩৫) নামে এক যুবককে ইয়াবা দিয়ে ফাঁসিয়ে একলাখ টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে।


    সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় উপজেলার চান্দুরা ইউনিয়নের ফুলতলী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর উত্তেজিত এলাকাবাসী দায়িত্বরত টহল পুলিশকে ঘেরাও করে রাখে। তবে ওই সময় পুলিশ স্থানীয়দের কাছে জব্দকরা কোনো ইয়াবা ট্যাবলেট দেখাতে পারেনি। পরে থানা থেকে অতিরিক্ত পুলিশ এসে আটককৃত যুবকে মোটরসাইকেল সহ থানায় নিয়ে যায়।

    ajkerograbani.com

    এলাকাবাসী ও ভূক্তভোগী যুবক জানায়, সোমবার সন্ধ্যার দিকে বিজয়নগর উপজেলার চান্দুরা ইউনিয়নের ফুলতলী গ্রামে বিজয়নগর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. রশীদ এর নেতৃত্বে পুলিশের একটি টহল দল চেকপোস্ট বসিয়ে বিভিন্ন যানবাহন তল্লাসী করছিলেন। এ সময় পাশের উপজেলা হবিগঞ্জ জেলার মাধবপুর উপজেলার ধর্মঘর ইউনিয়নের বাসিন্দা নূরনবী নামক এক যুবককে তার ব্যবহৃত মোটরসাইকেলটির গতিরোধ করে। এক পর্যায়ে তার শরীরে তল্লাসী চালায় পুলিশ।

    পরে জুতারতলা সহ সব কিছু তল্লাসী করে কোনো কিছু পায়নি। তবে তল্লাসী চলাকলীন তার সাথে একলাখ টাকা ছিল। এক পর্যায়ে পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়। পরে মহুর্তের মধ্যে তাকে আবার ধাওয়া করে ধরে ইয়াবা আছে বলে তার কাছ থেকে একলাখ টাকা কেড়ে নেয়। এ সময় মোটরসাইকেল আরোহী নূরনবী চিৎকার করলে এলাকার লোকজন এসে জড়ো হয়ে পুলিশকে ঘেরাও করে। এলাকাবাসীর তোপের মুখে পড়ে তাৎক্ষণিক তার কাছ থেকে পাওয়া কোনো ইয়াবা দেখাতে পারেনি পুলিশ। পরে থানার অফিসার ইনচার্জ আতিকুর রহমানকে  খবর দেয় পুলিশ সদস্যরা। থানা থেকে অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনা স্থলে এসে মোটরসাইকেল সহ নূরনবী নামক ওই যুবককে থানায় নিয়ে যায়।

    ঘটনা স্থলে উপস্থিত উপজেলার আব্দুল্লাপুর গ্রামের শিপন মিয়া জানান, আমি এবং আমার সাথে থাকা অনেকেই খেয়াল করে দেখেছি পুলিশ একটি মোটরসাইকেলকে গতি রোধ করে। এ সময় নূরনবী নামক এক যুবককে গতিরোধ করে তল্লাসী করে পুলিশ সদস্যরা। পুলিশ তার জুতার তলায় পর্যন্ত চেক করেন। তখন তার কাছে কোনো ইয়াবা ট্যাবলেট পায়নি পুলিশ।
    তবে চেক করার সময় তার কাছে একলাখ টাকা ছিল। পরে ওই যুবককে দ্বিতীয় দফায় ধাওয়া করে তার কাছে থাকা টাকাটা পুলিশ নিয়ে নেয়। এসময় তাকে গুলি করার ভয় দেখানো হয় বলেও জানান তিনি। এক পর্যায়ে তোপের মুখে পড়ে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ থানায় ফোন করে। পরে অতিরিক্ত পুলিশ এসে ওই যুবকে মোটরসাইকেল সহ থানায় নিয়ে যায়। তবে তখন জব্দকরা কোনো ইয়াবা কাউকে দেখাতে পারেননি পুলিশ।

    এদিকে ঘটনা স্থলে উপস্থিত স্থানীয় ব্যবসায়ী পরিমল সাহা জানান, পুলিশ এসে আমার কাছ থেকে ঘটনার সাক্ষী হিসেবে সাদা কাগজে স্বাক্ষর নেয়। তবে তারা আমাকে জব্দ করা ইয়াবা দেখাতে পারেননি। কি করবো পুলিশতো। তাই স্বাক্ষর দিয়েছি।

    এ ব্যাপারে বিজয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আতিকুর রহমান জানান, আটককৃত যুবক নূরনবী কাছে থাকা একটি সিগারেটের প্যাকেটে ২৮ পিস ইয়াবা পাওয়া গেছে। এ ছাড়া তার কাছে থাকা একলাখ টাকা জব্দ করা হয়েছে। আটককৃত যুবক মাদক ব্যবসায়ী। তার বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য আইনে থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। এছাড়াও তার বিরুদ্ধে হবিগঞ্জের মাধবপুর থানায় মাদক মামলা রয়েছে।

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২
    ১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
    ২০২১২২২৩২৪২৫২৬
    ২৭২৮২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4755