• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    গলায় চোখে আঘাতের চিহ্ন, হাত কামড়েছে শিয়াল

    | ১৫ জানুয়ারি ২০২১ | ৭:৫৬ অপরাহ্ণ

    গলায় চোখে আঘাতের চিহ্ন, হাত কামড়েছে শিয়াল

    ময়মনসিংহের তারাকান্দায় অপহরণের তিনদিন পর বাড়ির পাশের জঙ্গলে পাওয়া গেল সানজিদা নামে এক শিশুর ক্ষতবিক্ষত মরদেহ। নির্মম এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় এলাকায় নেমে এসেছে শোকের ছায়া। পুলিশ বলছে, এটি পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড। জড়িতদের সনাক্ত ও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।


    শুক্রবার (১৫ জানুয়ারি) সকালে উপজেলার রামচন্দ্রপুর জঙ্গল থেকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

    ajkerograbani.com

    নিহত সানজিদা আক্তার উপজেলার রামচন্দ্রপুর এলাকার শাহজাহান আকন্দের মেয়ে। সানজিদা স্থানীয় রামচন্দ্রপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্রী ছিল।

    মঙ্গলবার (১২ জানুয়ারি) সকালে তারাকান্দার রামচন্দ্রপুর গ্রামের বাড়ির পাশ থেকে নিখোঁজ হয় শাহজাহান আকন্দের বড় মেয়ে সাত বছরের সানজিদা। সন্ধ্যায় মেয়েকে ফেরত পেতে যোগাযোগের মোবাইল নম্বরসহ চিরকুট পাওয়া যায় সানজিদার ঘরে। মোবাইলে নাম্বারে যোগাযোগ করলে বিভিন্ন অংকের টাকা মুক্তিপণ চাওয়া হয় স্বজনদের কাছে। এক পর্যায়ে নাম্বার বন্ধ করে দেওয়া হয়।

    অনেক খোঁজাখুঁজি করেও মেয়েকে না পেয়ে দিশেহারা পরিবারের সদস্যরা পরদিন তারাকান্দা থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন। তাতেও শেষ রক্ষা হয়নি। শুক্রবার (১৫ জানুয়ারি) সকালে বাড়ির পাশের জঙ্গলে সানজিদার ক্ষতবিক্ষত মরদেহ পাওয়া যায়। জমি নিয়ে বিরোধের জেরে মেয়েকে হত্যা করা হতে পারে বলে ধারণা মায়ের। জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি স্বজন ও এলাকাবাসীর।

    খবর পেয়ে পুলিশ, র‌্যাব ও সিআইডির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

    তারাকান্দা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. রফিকুল ইসলাম জানান, মঙ্গলবার (১২ জানুয়ারি) নিখোঁজের পরদিন থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন পরিবারের সদস্যরা। এরপর মেয়েটিকে উদ্ধারে সব রকম চেষ্টা করা হয়। শুক্রবার সকালে বাড়ির পাশে জঙ্গলে মরদেহ পাওয়া যায়। ঘটনার পারিপার্শ্বিকতায় এটিকে পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড বলে ধারণা করা হচ্ছে। জড়িতদের সনাক্ত ও গ্রেফতারে চেষ্টা চলছে।

    এদিকে ঘটনাস্থল থেকে আলামত সংগ্রহ করেছে সিআইডির ক্রাইমসিন ইউনিট। সিআইডির ক্রাইমসিন ইউনিটের ওসি মোহাম্মদ ইউসুফ বলেন, আমরা ঘটনাস্থল থেকে আলামত সংগ্রহ করেছি। শিশুটির গলায় ও চোখে আঘাতের চিহ্ন আছে। একটি হাতের কিছু অংশ শেয়ালে খেয়ে ফেলেছে। আলামতের ফরেনসিক পরীক্ষার পর হত্যার প্রকৃত কারণ ও হত্যাকারীদের সনাক্ত করা যাবে।

    শুক্রবার বিকেলে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেলে পাঠিয়েছে পুলিশ। এ ব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২
    ১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
    ২০২১২২২৩২৪২৫২৬
    ২৭২৮২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4755