বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ২, ২০২০

গোপালগঞ্জে দুই পায়ের রগ কেটে সাবেক সেনা সদস্য লিটু সরদারকে হত্যা

ডেস্ক   |   বৃহস্পতিবার, ০২ এপ্রিল ২০২০ | প্রিন্ট  

গোপালগঞ্জে দুই পায়ের রগ কেটে সাবেক সেনা সদস্য লিটু সরদারকে হত্যা

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে দুই পায়ের রগ কেটে দেওয়া সাবেক সেনা সদস্য লিটু সরদার (৫০) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন।
বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) রাত সোয়া ৮টার দিকে গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।
এদিকে এ ঘটনায় কাশিয়ানী থানা পুলিশ ৫ জনকে আটক করেছে।
নিহত লিটু সরদার উপজেলার সাজাইল ইউনিয়নের রাইতকান্দি পূর্বপাড়া গ্রামের মান্নান সরদারের ছেলে।
বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার সাজাইল বাজার এলাকায় প্রতিপক্ষের লোকজন লিটু সরদারের দুই পায়ের রগ কেটে দেয় এবং শরীরের বিভিন্ন স্থানে কুপিয়ে জখম করে। এ সময় তার সঙ্গে থাকা প্রতিবেশী মঞ্জু শেখকে পিটিয়ে আহত করা হয়। পরে পরিবারের লোকজন তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসকরা লিটু সরদারকে গোপালগঞ্জ ২৫০-শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে পাঠায়।
আহত লিটু সরদারের ভাই মুরাদ সরদার জানান, কয়েকদিন আগে গ্রামের একটি জমি নিয়ে লিটু সরদারের সঙ্গে একই গ্রামের এনায়েত সরদার ও রঞ্জু সরদারের বিরোধ ঘটে। ওই ঘটনার জেরে ৪ দিন আগে লিটু সরদারের ছেলে লিংকন সরদারকে মারধর করে তারা। এ বিষয় নিয়ে বৃহস্পতিবার দুপুরে কাশিয়ানী থানার ওসির সঙ্গে দেখা করে ফিরছিলেন লিটু সরদার ও প্রতিবেশী মঞ্জু শেখ। তারা সাজাইল বাজারের কাছে পৌঁছালে আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা এনায়েত সরদার ও রঞ্জু সরদারের লোকজন দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে তাদের ওপর হামলা চালায়। এ সময় লিটু সরদারকে এলোপাতাড়ি কোপায় ও দুই পায়ের রগ কেটে দেয় এবং প্রতিবেশী মঞ্জু শেখ বেধরক পিটিয়ে ফেলে রেখে চলে যায়।
কাশিয়ানী থানার ওসি আজিজুর রহমান জানান, আহত লিটু সরদার মারা গেছেন। এ ঘটনায় পুলিশ ৫ জনকে আটক করেছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত অন্যদেরও আটকের চেষ্টা চলছে। এ ঘটনায় এখনো মামলা হয়নি বলে জানান ওসি।


Posted ১০:২২ পিএম | বৃহস্পতিবার, ০২ এপ্রিল ২০২০

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement