• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    প্রতারিত হয়ে ২ সন্তানকে হত্যার পর পিতার আত্মহত্যা

    ডেস্ক | ২২ জুন ২০১৮ | ১২:২৭ অপরাহ্ণ

    প্রতারিত হয়ে ২ সন্তানকে হত্যার পর পিতার আত্মহত্যা

    নরসিংদীর রায়পুরায় দুই সন্তানকে হত্যার পর আত্মহত্যা করেছেন পিতা।


    শুক্রবার ভোররাতে রায়পুরা পৌর এলাকার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সংলগ্ন তুলাতলী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।


    নিহতরা হলেন- অটোরিকশাচালক কাজল মোল্লা (৩২) ও তার মেয়ে কাকলী আক্তার (৮) এবং ছেলে সোয়ান মোল্লা (৫)।

    পুলিশের ধারণা, দারিদ্র্যতা ও ঋণগ্রস্ত হওয়ার কারণে সন্তানদের নিয়ে কাজল মোল্লা আত্মহত্যা করেছেন।

    তবে সম্পত্তি নিয়ে ভাইদের সঙ্গে কোনো শত্রুতা রয়েছে কিনা তাও খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

    জানা গেছে, ময়মনসিংহের নান্দাইল এলাকার জনৈক রুহুল আমিনের কাছে বিদেশ যাওয়ার জন্য টাকা দিয়ে সর্বশান্ত হন কাজল। সাক্ষ্য-প্রমাণের অভাবে নরসিংদী কোর্টে মামলায় হেরে যান তিনি। এতে হতাশাগ্রস্ত হয়ে সন্তানদের নিয়ে আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

    পুলিশ জানায়, কাজল মোল্লা প্রায় তিন বছর ধরে পুটিয়া নামক স্থানে থেকে নরসিংদী শহরে অটোরিকশা চালাতেন। বিদেশে যাওয়ার জন্যে রুহুল আমিন নামে একজনকে সাড়ে ছয় লাখ টাকা দিয়েছিলেন। টাকা ফেরত দিতে টাল বাহানা করায় কাজল তার বিরুদ্ধে নরসিংদী আদালতে মামলা দায়ের করেন।

    গতকাল বৃহস্পতিবার সাক্ষ্য-প্রমাণের অভাবে মামলার রায় কাজলের বিপক্ষে যায়। মামলা হেরে হতাশাগ্রস্ত হয়ে দুই শিশু সন্তানকে নিয়ে তুলাতুলী হাসপাতাল সংলগ্ন নিজ পৈতৃক বাড়িতে আসেন।

    ওই দিনই সন্ধ্যায় বাড়ি থেকে সন্তানদের নিয়ে বেড়িয়ে যান কাজল। শুক্রবার সকালে স্বজনরা খবর পান বাড়ির খানিকটা দুরে তুলাতুলী ঈদগাহ মাঠ সংলগ্ন কাজল তার তার দুই সন্তানকে হত্যা করে তিনিও আহত্মহত্যা করেছেন।

    কাজল মোল্লার বড় ভাই সামসু মোল্লা জানান, ‘প্রায় তিন বছর ধরে আমাদের নিজ বাড়ি ছেড়ে শশুরবাড়িতে থাকত কাজল। নরসিংদী শহরে অটোরিকশা চালাতো। মাঝে মধ্যে খোঁজখবর নিতে আমাদের বাড়িতে আসতো।

    গতকাল সন্ধ্যার আগে সে তার দুই সন্তানকে নিয়ে আমাদের বাড়িতে আসে এবং আমাদেরকে দেখে সন্ধ্যার পর চলে যায়।

    পরের দিন শুক্রবার সকালে খবর পাই, আমাদের বাড়ির খানিকটা দূরে তার দুই সন্তানকে হত্যা করে সে নিজেও আহত্মহত্যা করেছে।

    এসময় দুই শিশু সন্তানের লাশ একটি গর্তের পাশে নোংড়া বর্ষার জমে থাকা পড়ে ছিল। আর কাজলের লাশ পাশেই একটি গাছে সঙ্গে ঝুলানো ছিল।’

    এ ঘটনায় গোটা এলাকা জুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। খবর পেয়ে সকাল ১০টার দিকে রায়পুরা থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করে।

    রায়পুরা থানার ওসি দেলোয়ারর হোসেন বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে দারিদ্র্যতা ও ঋণগ্রস্ত হওয়ার কারণে সন্তানদের নিয়ে আত্মহত্যা করেছেন কাজল।

    ওসি আরও বলেন, কাজল মোল্লা বিদেশ যাওয়ার জন্য ময়মনসিংহের নান্দাইলের রুহুল আমিন নামে এক দালালের মাধ্যমে সাড়ে ছয় লাখ টাকা জমা দেন। সাক্ষ্য-প্রমাণের অভাবে নরসিংদী কোর্টে মামলা হেরে যান তিনি। এতে হতাশাগ্রস্ত হয়ে সন্তানদের নিয়ে আত্মহত্যার পথ বেছে নেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

    তবে পুরো ঘটনা তদন্ত করে দেখা হবে বলে জানান দেলোয়ারর হোসেন।

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫
    ১৬১৭১৮১৯২০২১২২
    ২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
    ৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4673