বুধবার ২০শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

‘বাজে আচরণের রাজা’ সাকিব!

  |   বৃহস্পতিবার, ০১ জুলাই ২০২১ | প্রিন্ট  

‘বাজে আচরণের রাজা’ সাকিব!

বাজে আচরণের চ্যাম্পিয়নশিপ নিয়ে হাজির হয়েছে জনপ্রিয় ক্রিকেটভিত্তিক ওয়েবসাইট ক্রিকইনফো। যেখানে তারা বিশ্লেষণ করেছে বিগত দিনগুলোতে খেলোয়াড়ের বাজে আচরণের সব ঘটনা। শেষমেশ সাকিব আল হাসানকে বাজে আচরণের রাজা হিসেবে আখ্যায়িত করেছে তারা!
সবশেষ ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে আবাহনী লিমিটেডের বিপক্ষে ম্যাচের ঘটনা। গত ১১ জুনের ম্যাচটিতে আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত মনঃপুত না হওয়ায় প্রথমে স্ট্যাম্পে লাথি মারেন সাকিব। পরে বৃষ্টির কারণে খেলা বন্ধের ঘোষণা দেয়া হলে তিনটি স্ট্যাম্প তুলে মাটিতে সজোরে আছাড় মারেন তিনি।
এ ঘটনায় সাকিবকে ৩ ম্যাচ নিষিদ্ধ ও ৫ লাখ টাকা জরিমানার শাস্তি দেয়া হয়। এ শাস্তি ভোগ করে প্রিমিয়ার লিগের প্রথম পর্বের শেষ ম্যাচটিও খেলেছিলেন সাকিব। ক্রিকেট মাঠে খেলোয়াড়দের মেজাজ হারানোর এমন ঘটনা প্রায়ই দেখা যায় বিধায়, এটিকে তেমন বড় করেনি প্রিমিয়ার লিগের আয়োজকরা।
তবে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ শেষে এর সঙ্গে মিল রেখে নিজেদের মাসিক আয়োজন ‘দ্য ব্রিফিং’য়ে বাজে আচরণের চ্যাম্পিয়নশিপের একটা ধারণা তুলে আনল ক্রিকইনফো। সেখানেই বাকি সবাইকে ছাপিয়ে ‘ব্যাড বিহেভিয়ার কিং’ তথা বাজে আচরণের রাজা হিসেবে সাকিবের নাম উল্লেখ করেছে তারা।
একই প্রতিবেদন বাজে আচরণ করা ভাই হিসেবে শ্রীলংকার তিন ক্রিকেটার কুশল মেন্ডিস, নিরোশান ডিকভেলা ও নিরোশান গুনাথিলাকার নাম উল্লেখ করেছে তারা। কেননা জাতীয় দলের গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বের মাঝে জৈব সুরক্ষা বলয় ভঙ্গের মতো গর্হিত কাজ করেছেন এ তিনজন।
সাকিবকে বাজে ব্যবহারের রাজা উল্লেখ করে ক্রিকইনফো লিখেছে, ‘শ্রীলংকার ক্রিকেটারদের জৈব সুরক্ষা বলয় ভঙ্গের কাজটি বাজে আচরণের পাল্লায় খুব ছোট হয়ে দেখাবে, যখন তাদেরকেও ছাপিয়ে যাবে কেউ। ঠিক তেমনই কাজ করেছেন সাকিব আল হাসান। তিনি জানতেন সরাসরি সম্প্রচার করা হচ্ছে এবং মিডিয়াও সেখানে নজর রেখেছে’।
‘এরই মাঝে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে প্রথমে আউটের আবেদনে সিদ্ধান্ত পছন্দ না হওয়ায় স্ট্যাম্পে লাথি মারা এবং পরে বৃষ্টিতে খেলা বন্ধ করার ঘোষণা দিলে স্ট্যাম্প তুলে মাটিতে আছাড়া মেরেছেন’।
‘অথচ ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব গোপন রাখার দায়ে পাওয়া নিষেধাজ্ঞার এখনো দুই বছর হয়নি সাকিবের। এর সঙ্গে রয়েছে তার আগের নানান কীর্তি। যেমন খেলা ছেড়ে বেরিয়ে যাওয়ার হুমকি (নিদাহাস ট্রফি), আম্পায়ারের ওপর রাগ দেখানো (বিপিএল), একজন দর্শককে শারীরিক প্রহারসহ আরো অনেক কিছু। যেগুলো সত্যিই দেখার বিষয়’।
‘যদি সত্যিই বিশ্ব বাজে আচরণের কোনো চ্যাম্পিয়নশিপ হয়, তাহলে নিশ্চয়ই সেটা উঠবে সাকিবের হাতে। তবে তার হাতে ট্রফিটি তুলে দেয়ার সঙ্গে সঙ্গে আপনাকে ভোঁ দৌড় দিতে হবে শুধু। কারণ অবশ্যই তিনি এটিকেও ছুঁড়ে মারবেন আপনার দিকে’।
ক্রিকইনফোর মাসিক আয়োজন দ্য ব্রিফিং। যেখানে মূলত বিগত দিনগুলোতে ঘটে যাওয়া ঘটনাগুলোকে কৌতুকের ছলে তুলে আনে তারা। এর আগে মার্চ মাসের প্রতিবেদনে সাকিবের টেস্ট বাদ দিয়ে আইপিএলকে বেছে নেয়ার ঘটনাকেও দ্য ব্রিফিংয়ে সমালোচনা করা হয়েছিল।

Facebook Comments Box


Posted ৩:৫২ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ০১ জুলাই ২০২১

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১