• শিরোনাম

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    যুবলীগ নিয়ে কি ষড়যন্ত্র হচ্ছে?

    ডেস্ক | ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ১২:০৩ পূর্বাহ্ণ

    যুবলীগ নিয়ে কি ষড়যন্ত্র হচ্ছে?

    ছাত্রলীগের সভাপতি এবং সাধারণ সম্পাদককে অপসারণের পর এখন আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে যুবলীগ। শনিবারে আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী পরিষদের সভায় সন্ত্রাস, চাঁদাবাজি, টেন্ডারবাজিসহ ক্যাডারভিত্তিক রাজনীতির তীব্র সমালোচনা হয়েছে। এই সমালোচনা করতে যেয়ে কিছু কিছু প্রসঙ্গে একাধিক যুবলীগ নেতার নাম এসেছে বলেও আওয়ামী লীগের দায়িত্বশীল সূত্রগুলো নিশ্চিত করেছে। এরপর থেকেই রাজনৈতিক অঙ্গনে প্রশ্ন উঠেছে যে, ছাত্রলীগের পরে কী যুবলীগে শুদ্ধি অভিযান চালাবেন আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা?

    একাধিক সূত্র বলছে যে, যুবলীগে যারা সন্ত্রাস, চাঁদাবাজি, টেন্ডারবাজিসহ নানা অপতৎপরতার সাথে জড়িত তাদের তালিকা তৈরী করা হয়েছে এবং তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। তাহলে কি ছাত্রলীগের মতোই ভাগ্যবরন করতে হবে যুবলীগের নেতৃবৃন্দকেও? এ প্রশ্ন উঠেছে রাজনৈতিক অঙ্গনে। যদিও গত এক দশকে ছাত্রলীগ এবং যুবলীগের মধ্যে পার্থক্য অনেক। ছাত্রলীগ যখন ক্রমশ একটি ছাত্র সংগঠন থেকে চাঁদাবাজ এবং জামাত শিবির আত্মীকরনের প্রতিষ্ঠানে পরিণত হয়েছে যুবলীগ তখন এর বিপরীত দিকেই হেঁটেছে। যুবলীগ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জনগনের ক্ষমতায়নের রাষ্ট্রদর্শন নিয়ে দেশের ভেতরে এবং বাইরে প্রচারণায় অংশগ্রহণ করেছে। যুবলীগ গবেষণার মাধ্যমে জাতির পিতার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার রাজনৈতিক জীবন ও রাষ্ট্রচিন্তা দর্শন নিয়ে পুস্তক প্রকাশ করেছে। মেধা মননে চর্চার মাধ্যমে একটি মননশীল যুব সমাজ গঠনে কাজ করেছে। যুবলীগ বাংলাদেশের প্রথম সংগঠন যারা একুশে বইমেলায় স্টল নিয়েছে। স্টল নিয়ে জাতির পিতা মুক্তিযুদ্ধ, বাংলাদেশের ঐতিহ্য সংস্কৃতি এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জীবন দর্শন নিয়ে একাধিক পুস্তক এই বইমেলায় তারা বিক্রী করেছেন। পাশাপাশি যু্বলীগই প্রথম দেয়াল লিখন, পোস্টারের মতন পরিচ্ছন্নতা বিরোধী তৎপরতা বন্ধ করে সংবাদপত্রে ক্রোড়পত্র প্রকাশের মত সাহসী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। এর মাধ্যমে যুবলীগ একটি গবেষণাধর্মী মেধা চর্চা করার প্রতিষ্ঠান হিসেবে নিজেদের আত্মপ্রকাশ করেছেন। এর পাশাপাশি বিপরীত ধারা যে ছিল না তা নয়। যুবলীগের বিরুদ্ধেও বিচ্ছিন্নভাবে চাঁদাবাজি, সন্ত্রাস, দলাদলি, টেন্ডারবাজি ইত্যাদি অভিযোগ উঠেছিল। যদিও যুবলীগের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বে এসবের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। অনুসন্ধ্যানে দেখা যায় গত ১০ বছরে যুবলীগের যত নেতাকর্মীদের বহিস্কার করা হয়েছে। অন্যকোন সংগঠন এরকম ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারেনি। তারপরও টানা ক্ষমতায় থাকার কারণে যুবলীগের মধ্যেও নানা রকম ভ্রান্তি রয়েছে। কিন্তু এইসব বিভ্রান্তি সত্বেও বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগই গত দশ বছরে একমাত্র সংগঠন যারা সাংগঠনিকভাবে নিজেদেরকে শক্তিশালি করেছে। নানা রকম কর্মসূচীর মাধ্যমে দলকে উদ্দীপ্ত করেছে। কেবল মেধা ও মননশীলতার চর্চাই নয়, আওয়ামী লীগের বিভিন্ন লোকসমাগমের জমায়াতগুলোতে প্রধান ভরসাই ছিল যুবলীগ। এমনকি বিভিন্ন সংকটে যেমন, ২০১৩-১৪ আন্দোলন, হেফাজতের আন্দোলনসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক সংকটে যুবলীগই সাহসীভাবে রাজপথে দাঁড়িয়েছে। তাই রাজনৈতিক মহল মনে করছে ছাত্রলীগের সঙ্গে যুবলীগের কোনভাবে তুলনা করাই চলে না।


    তাহলে যুবলীগকে কলুষিত করা হচ্ছে কেন? এটা কি কোন ষড়যন্ত্রের শিকার? যেহেতু যুবলীগ গত এক দশকে আওয়ামী লীগের প্রধান সংগঠনে পরিণত হয়েছে এবং কোন কোন ক্ষেত্রে সাংগঠনিক দক্ষতায় তারা আওয়ামী লীগকে ছাপিয়ে গেছে। আওয়ামী লীগ যেখানে মাত্র একটি জেলা কাউন্সিল করেছে সেখানে যুবলীগ সারদেশে ৩৬টি কাউন্সিল করেছে। সবগুলো কাউন্সিল ভোটের মাধ্যমে করে একটি নতুন দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। সেকারণেই আওয়ামী লীগের অভ্যন্তরেই এই প্রশ্ন উঠেছে যে তাহলে কি যুবলীগ ষড়যন্ত্রের শিকার? যুবলীগের সাফল্যে ইর্ষান্বিত হয়ে কি একটি মহল ষড়যন্ত্র করছে?

    বাংলাদেশে দীর্ঘদিন ধরে একটি বিরাজনীতিকরণের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। সেখানে সক্রিয় সংগঠনের বদলে একটি নিষ্ক্রিয় সংগঠন করার একটি প্রক্রিয়াও দৃশ্যমান। সেখানে যুবলীগের মত একটি সংগঠন যারা রাজপথে এমনকি মেধা মননে নিজদের দক্ষতা প্রমাণ করছে তাদের সামান্য বিচ্যুতিগুলোকে ফুলিয়ে ফাপিয়ে তুলে রাজনীতি সম্বন্ধে মানুষের মধ্যে বিরক্তি উৎপাদন করা এবং মানুষকে বিরাজনীতির দিকে ঠেলে দেওয়ার চেষ্টাই কি করা হচ্ছে?

    অনেক রাজনৈতিক বিশ্লেষক মনে করছেন যে, যুবলীগকে এই আক্রমণ করার পিছনে আওয়ামী লীগেরই একটি অংশের ইন্ধন রয়েছে। কারণ আওয়ামী লীগ এবং তাঁর অঙ্গ সংগঠনগুলোর যখন কোন কর্মসূচি নেই, হাত পা গুটিয়ে বসে আছে তখন যুবলীগের নিরবিচ্ছিন্ন কর্মসূচি, নানারকম প্রকাশনা, চিত্র প্রদর্শনীসহ নানারকম কর্মসূচি অব্যাহত রেখেছে। সেজন্য কি যুবলীগ আক্রমণের কেন্দ্রে এসেছে? যুবলীগ যেন একটি নিষ্ক্রিয় প্রতিষ্ঠানে পরিণত হয় তখন আস্তে আস্তে সৃজনশীল রাজনীতির যেন মৃত্যু হয় সেজন্যই কি এখন যুবলীগ আক্রমণের কেন্দ্রে?

    Comments

    comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী