• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    যে কারণে ইসলামে তালাকের বিধান

    অগ্রবাণী ডেস্ক | ১৭ মে ২০১৭ | ১১:২২ পূর্বাহ্ণ

    যে কারণে ইসলামে তালাকের বিধান

    ইসলামের দৃষ্টিতে তালাক কোনো পসন্দনীয় কাজ নয়। বরং ইসলামে সবচেয়ে ঘৃণ্য ও নিকৃষ্ট হালাল কাজ হলো তালাক। তালাক শব্দটির মানে হলো বিয়ের বন্ধন খুলে দেয়া; স্বামী-স্ত্রীর সম্পর্ক পরিত্যাগ করা বা বিচ্ছিন্ন করা। স্বামী কর্তৃক সরাসরি অথবা প্রতিনিধির মাধ্যমে নির্দিষ্ট বাক্য অথবা ইঙ্গিতে দাম্পত্য জীবনের সম্পর্ক ছিন্ন করাই হলো তালাক।


    ‘তালাক’ শব্দটি ইসলামের আগমনের আগে জাহেলি যুগে ব্যবহৃত পরিভাষা। ইসলামের আগমনের পরেও এ শব্দটিই ব্যবহৃত হচ্ছে।

    ajkerograbani.com

    তালাকের বিধানের উদ্দেশ্য
    তালাককে ইসলামে সবচেয়ে অপছন্দনীয় হালাল কাজ হিসেবে স্বীকৃতি দেয়া হয়েছে। এ বিধান প্রদানের উদ্দেশ্য হলো- স্বামী-স্ত্রীর দাম্পত্য জীবনের পারস্পরিক সম্পর্ক যখন এমন খারাপ পর্যায়ে পৌঁছে যায় যে, তারা সম্প্রীতি ও সৌহার্দ্যপূর্ণভাবে জীবন-যাপন করার কোনো সম্ভাবনাই দেখতে পায় না।

    এমনকি সর্বোচ্চ চেষ্টা করেও এ অবস্থার সংশোধন ও পরিবর্তনের আশাও শেষ হয়ে যায়। যার ফলে শান্তিপূর্ণ পরিবার গঠনে বিয়ের উদ্দেশ্য সম্পূর্ণ ব্যথ হয়ে যায়।

    তখন উভয়কে ভবিষ্যত দ্বন্দ্ব-সংঘাত ও তিক্ততা-বিরক্তির বিষাক্ত পরিণতি থেকে রক্ষার উদ্দেশ্যে চূড়ান্তভাবে বিচ্ছেদ ঘটিয়ে দেয়া।

    আর এ কারণেই কোনোভাবেই তালাককে বিন্দুমাত্র উৎসাহিত করা হয়নি বরং এ তালাকের বিধান হচ্ছে নিরূপায়ের উপায় মাত্র।

    দাম্পত্য জীবনে মিলমিশ রাখার সব প্রচেষ্টা যখন ব্যর্থ হয়ে যায়; তখন এ ব্যবস্থার সাহায্যে স্বামী-স্ত্রী উভয়ের স্বাতন্ত্র ও ব্যক্তিগত সত্ত্বাকে বাঁচিয়ে রাখার এবং জীবনকে অশুভ ধ্বংসের হাত থেকে উদ্ধার করাই হচ্ছে তালাকের উদ্দেশ্য।

    তালাক যে ইসলামে পসন্দনীয় কাজ নয়, হাদিসের সুস্পষ্ট ঘোষণা থেকেই তা প্রমাণিত। রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘আল্লাহ তাআলা তালাকের চেয়ে অধিক ঘৃণ্য কোনো জিনিস হালাল করেননি।’ (আবু দাউদ)

    তালাকের ভয়াবহতা সম্পর্কে হজরত আলি রাদিয়াল্লাহু আনহ’র বর্ণনায় এসেছে, প্রিয়নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘তোমরা বিয়ে কর কিন্তু তালাক দিয়ো না। কেননা তালাক দিলে তার দরুণ আল্লাহর আরশ কেঁপে ওঠে।’ (তাফসিরে কুরতুবি)

    পরিশেষে…
    ইসলামের চরম ঘৃণিত হালাল কাজ তালাক থেকে বিরত থাকাই উত্তম। আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহর নিরূপায় অবস্থার উপায় স্বরূপ এ তালাকের বিধান প্রণয়ন করেছেন।

    দাম্পত্য জীবনের ভারসাম্যতা বজায় রাখতে প্রিয়নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ঘোষণা করেন, ‘তোমরা বিয়ে কর কিন্তু তালাক দিয়ো না। কেননা আল্লাহ তাআলা সে সব স্বামী-স্ত্রীকে পসন্দ করেন না; যারা নিত্য নতুন বিয়ে করে স্বাদ গ্রহণ করতে অভ্যস্ত।’ (আহকামুল কুরআন)

    আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে সুন্দর সমাজ গঠনে তালাকের মতো অপসন্দনীয় কাজ থেকে বিরত থাকার তাওফিক দান করুন। কুরআন সুন্নাহ মোতাবেক সুন্দর সৌহার্দ্যপূর্ণ পারিবারিক জীবন-যাপন করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

    Facebook Comments Box

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
    ১০১১১২১৩১৪
    ১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
    ২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
    ২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4757