• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    রংপুর কি জাপাকে ছেড়ে দিচ্ছে বিএনপি?

    আজকের অগ্রবাণী ডেস্ক | ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭ | ৮:০২ অপরাহ্ণ

    রংপুর কি জাপাকে ছেড়ে দিচ্ছে বিএনপি?

    রংপুর সিটি নির্বাচনে জাতীয় পার্টিকে ওয়াকওভার দিচ্ছে বিএনপি। গত দুই দিনে এই গুঞ্জন দাঁড়িয়ে পড়েছে রাজনৈতিক অঙ্গনে। আগামী নির্বাচনে সমঝোতার প্রথম শর্ত পূরণের জন্যই বিএনপির এমন ছাড় বলে মনে করা হচ্ছে।


    একাধিক সূত্র বলছে, এরশাদসহ জাপা নেতাদের সঙ্গে আড়ালে সমঝোতা হয়েছে বিএনপির। জাতীয় নির্বাচনে জাপাকে জোটে চায় তারা। তবে এজন্য রংপুর সিটি নির্বাচনে বিশেষ সুবিধা দাবি করেছে জাপা।


    রংপুর সিটি নির্বাচনকে মর্যাদার লড়াই হিসেবে নিয়েছে এরশাদ। যেকোনো মূল্যে জাপার প্রার্থীর জয় চান তিনি। আর তাই পরবর্তী যেকোনো স্যাক্রিফাইসে আপাতত তাঁর আপত্তি নেই। এটাকেই টোপ হিসেবে নিয়েছে বিএনপি। আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জোটে থাকবে এই আশায় রংপুর সিটি জাপাকে ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

    অবশ্য বিএনপির এমন সিদ্ধান্তের প্রতিফলন এরই মধ্যে দেখা যাচ্ছে রসিক নির্বাচনের মাঠে। বিএনপির প্রার্থী কাওসার জামান বাবলার পক্ষে প্রচারণার কথা ছিল বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতাদের। গত শনিবারই তাঁদের রংপুর যাওয়ার কথা ছিল। তবে এখনো মাঠে দেখা যায়নি তাঁদের।

    বিএনপি ঘনিষ্ঠ একাধিক সূত্রে জানা গেছে, রসিক নির্বাচনে দলের প্রচারণা হবে লো প্রোফাইল। আর শেষ মুহূর্তের সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না, এমন অভিযোগে সরে দাঁড়াতে পারেন বিএনপির মেয়র প্রার্থী বাবলা। আর এমনটি ঘটলে রসিক নির্বাচনে জাপার জয় অনেকটাই নিশ্চিত হয়ে যাবে।

    তবে এখানে বিশেষজ্ঞদের প্রশ্ন অন্য বিষয়ে, এরশাদের জাপার ভরসায় রংপুর সিটি ছেড়ে দিলেও জাতীয় নির্বাচনে বিএনপির আশা কি পূর্ণ হবে? যে এরশাদের ওপর বিএনপি ভরসা রাখছে, তিনি কি ভরসাযোগ্য? গত দুবারের জাতীয় নির্বাচন থেকে বিএনপির কি কোনো শিক্ষাই নিতে পারেনি?

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    ৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4669