• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    শিরোপাখরা কাটল না বার্সার

    | ১৮ জানুয়ারি ২০২১ | ৮:০১ পূর্বাহ্ণ

    শিরোপাখরা কাটল না বার্সার

    গেল মৌসুমটা কেটেছে একেবারে শিরোপাহীন। এরপর নানা নাটকীয়তা। ক্লাবে একের পর এক ঝামেলা। প্রতিনিয়ত পারফরম্যান্সের উঠা-নামা। সব কাটিয়ে ওঠার সুযোগ ছিল বার্সেলোনার সামনে। মৌসুমের প্রথম ট্রফিটা একেবারে জানালায় উঁকি দিচ্ছিল। দরজায় কড়া নাড়ছিল। শুধু দু’হাত ভরে ট্রফিটা উঁচিয়ে ধরার সুযোগ হলো না! 


    গেল কয়েকদিনের আশঙ্কাকে বুড়ো আঙ্গুল দেখিয়ে সেভিয়ায় ম্যাচের শুরু থেকেই মাঠে ক্লাব সুপারস্টার লিওনেল মেসি। একেবারে শেষ মূহুর্তে ইনজুরি কাটিয়ে ফিট হয়ে ফিরেছেন। একটা ট্রফি জেতার তীব্র সাধ ছিল তারও। কিন্তু পারলেন কই?

    ajkerograbani.com

    শুরু থেকেই সমানতালে লড়ে গেছে অ্যাথলেটিক বিলবাও। বার্সার একের পর এক আক্রমণের সামনে অসহায় আত্মসমর্পণ করেনি তারা। এরমধ্যেও বেশ কয়েকটি সুযোগ নষ্ট করেন গ্রিজম্যান-ডেম্বেলে-ডি ইয়ংরা। জাল খুঁজে পায়নি মেসির দূরপাল্লার শটও।

    শুরুতে লিডটা অবশ্য কাতালানদের। ৪০ মিনিটে গোল পান আঁতোয়া গ্রিজম্যান। মেসির থ্রো বল ধরে তাকে পাস দেন ডেম্বেলে। সেখান থেকে গোল করে দলকে এগিয়ে দেন ফরাসী তারকা। বিলবাওয়ের বিপক্ষে টানা ৮ ম্যাচ পর অবশেষে গোলের দেখা পেলেন গ্রিজম্যান।

    তবে বার্সেলোনার মুখের হাসিটা চওড়া হয়নি। পরের মিনিটেই শোধ করে বিলবাও। দলকে সমতায় ফেরান দি মার্কোস।

    বিরতি থেকে ফিরেই আবারো বার্সার দুর্বল রক্ষণে চড়াও হয় বিলবাও শিবির। ফলস্বরূপ ৫৬ মিনিটে গোলও করেন রাউল গার্সিয়া। যদিও অফসাইডে বাতিল হয় সেটি।

    ৭৭ মিনিটে আবারো কাতালানদেরকে লিড এনে দেন গ্রিজম্যান। বার্সার জার্সিতে নিজের ১ম প্রথম ফাইনালটাকে বেশ স্মরণীয় করেই রাখতে যাচ্ছিলেন তিনি। জর্ডি আলবার পাস থেকে গোল করে দলকে এগিয়ে নেন ২-১ গোলে।

    ৮৩ মিনিটে দারুণ এক সুযোগ পেয়েছিলেন ফ্র্যাঙ্কি ডি ইয়ং। ডেম্বেলের বানানো বল থেকে ডি ইয়ংকে পাস দেন মেসি। ডি বক্সে সুযোগ পেয়েও কাজে লাগাতে পারেননি এই ডাচ তরুণ।

    শিরোপা জয়ের আনন্দে মাততে যাবে বার্সেলোনা, ম্যাচের শেষ বাঁশি বাজার অপেক্ষা, ঠিক তখনই আচমকা গোল পরিশোধ করে বসে বিলবাও। ৯০ মিনিটে ভিয়ালারবিয়ার গোলে আবারো স্কোরশিটে সমতা।

    ম্যাচ গড়ায় অতিরিক্ত সময়ে। মাঠে নেমেই আবারো চড়াও বিলবাও শিবির। ৯৪ মিনিটে ইনাকি উইলিয়ামসের গোলে বিলবাওয়ের লিড। স্কোরলাইন ৩-২।

    সেই গোল আর শোধ করা হয়নি বার্সেলোনার। ডিফেন্ডার ল্যাংলেটকে তুলে মিডফিল্ডার ত্রিনকাওকে নামিয়েছেন রোনাল্ড কোম্যান, ডিফেন্সিভ মিডফিল্ডার বুসকেটসকে তুলে অ্যাটাকিং মিডফিল্ডার রিকি পুইগকে নামিয়েছেন। তবু গোল শোধ করতে ব্যর্থ বার্সেলোনা শিবির।

    ফলাফল, আরো একটা ট্রফির হাতছোঁয়া দূরত্বে গিয়েও খালি হাতে ফিরতে হলো বার্সেলোনাকে।

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২
    ১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
    ২০২১২২২৩২৪২৫২৬
    ২৭২৮২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4755