• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    সুন্দরবনে এসেছে নতুন অতিথি

    অনলাইন ডেস্ক | ১২ মে ২০১৭ | ৯:৪৩ অপরাহ্ণ

    সুন্দরবনে এসেছে নতুন অতিথি

    সুন্দরবনের করমজল বন্য প্রাণী প্রজননকেন্দ্রে এসেছে নতুন অতিথি! বিরল প্রজাতির ‘বাটাগুর বাসকা’ কচ্ছপের দেওয়া ডিম থেকে বাচ্চা ফুটেছে। ওই প্রজননকেন্দ্রে প্রথমবারের মতো এ ঘটনা ঘটল। তিন দফায় ২৬টি ডিম ফুটে বাচ্চা বের হয়েছে। বাচ্চাগুলো কচ্ছপ প্রজননকেন্দ্রের সুরক্ষিত চৌবাচ্চায় ছাড়া হয়েছে।


    করমজল কচ্ছপ প্রজনন ও রক্ষণাবেক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আবদুর রব জানান, পূর্ব সুন্দরবনের চাঁদপাই রেঞ্জের ঢাংমারী স্টেশনের আওতাধীন করমজল বন্য প্রাণী প্রজননকেন্দ্রে গত ৩ মার্চ প্রথমবারের মতো ৩১টি ডিম দেয় ‘বাটাগুর বাসকা’ প্রজাতির একটি কচ্ছপ। ওই কচ্ছপের দেওয়া ৩১টি ডিমের মধ্যে গত ৮ মে চারটি, গত ৯ মে ১৯টি ও ১০ মে তিনটি মোট ২৬টি বাচ্চা ফুটে বের হয়। বাকি পাঁচটি ডিমের মধ্যে তিনটি নষ্ট হয়ে যায় এবং অন্য দুটি ডিম থেকে আগামী দু-একদিনের মধ্যে বাচ্চা ফুটে বের হওয়ার সম্ভাবনা আছে বলে জানান তিনি।

    ajkerograbani.com

    আবদুর রব আরো বলেন, ‘ডিম থেকে বাচ্চা ফুটে বের হওয়ার পর সেগুলো কয়েক ঘণ্টা নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখার পর কেন্দ্রের নির্দিষ্ট সুরক্ষিত চৌবাচ্চায় ছাড়া হয়েছে।’

    এ ব্যাপারে পূর্ব সুন্দরবনের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) মো. সাইদুল ইসলাম বলেন, ‘বাংলাদেশ বন বিভাগ, আমেরিকার টারটেল সারভাইভাল এলায়েন্স, অস্ট্রিয়ার ভিয়েনা জু ও প্রকৃতি জীবন ফাউন্ডেশনের অর্থায়নে সুন্দরবনের করমজল বন্য প্রাণী প্রজননকেন্দ্রে কুমির, বানর ও হরিণের পাশাপাশি ২০১৪ সালে গড়ে তোলা হয় বিরল প্রজাতির ‘বাটাগুর বাসকা’ কচ্ছপ প্রজননকেন্দ্র। এ প্রজননকেন্দ্রে সদ্য জন্ম নেওয়া ২৬টি বাচ্চা ছাড়াও বর্তমানে বিভিন্ন বয়সী নারী-পুরুষ মিলিয়ে মোট ১২৩টি ‘বাটাগুর বাসকা’ কচ্ছপ গবেষণার জন্য রয়েছে। সুন্দরবন ও করমজলে গবেষকরা বাটাগুর বাসকার প্রজনন, বংশ বিস্তার, খাদ্যাভ্যাস, গতিবিধি নির্ণয়সহ নানা বিষয়ে কাজ করে যাচ্ছেন। এর উদ্দেশ্য একটাই—এ প্রজাতির কচ্ছপকে বিলুপ্তের হাত থেকে রক্ষা ও সংরক্ষণ করা।

    সাইদুল ইসলাম আরো বলেন, ‘এক সময়ে দেশের উপকূলীয় অঞ্চলসহ লবণাক্ত পানিতে প্রচুর পরিমাণে ‘বাটাগুর বাসকা’ বা বড় কাটালি কচ্ছপ পাওয়া যেত। এই প্রজাতির কচ্ছপ এখন প্রায় বিলুপ্তের পথে। এই কচ্ছপের বিশ্বে জুড়ে রয়েছে ব্যাপক চাহিদা। খাদ্য হিসেবেও আছে প্রচুর পুষ্টিগুণ। প্রাপ্তবয়স্ক একটি কচ্ছপ ২৫-৩০ কেজি ওজনের হয়ে থাকে। আর সাধারণত এ প্রজাতির কচ্ছপ ৭০-৮০ বছর পর্যন্ত বেঁচে থাকতে পারে।

    Facebook Comments Box

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
    ১০১১১২১৩১৪
    ১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
    ২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
    ২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4757