• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    সুন্দরবনে ফের আগুন, পাঁচ একর বন পুড়ে ছাই

    অগ্রবাণী ডেস্ক | ২৬ মে ২০১৭ | ৭:২৯ অপরাহ্ণ

    সুন্দরবনে ফের আগুন, পাঁচ একর বন পুড়ে ছাই

    সুন্দরবনে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা থামছেই না। একটা ঘটনারও কূলকিনারা হচ্ছে না। এক বছরের মাথায় বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবনে শুক্রবার ফের অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। সকাল ১০টার দিকে চাঁদপাই রেঞ্জের ধানসাগর স্টেশনের নাংলী ফরেস্ট ক্যাম্পের আওতাধীন আবদুল্লাহর ছিলায় এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুনে প্রায় পাঁচ একর বনভূমির ছোট গাছপালা,লতাগুল্ম পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।


    সুন্দরবনের ধানসাগর স্টেশন অফিসার মো. হুমায়ুন কবির জানান, আগুন নিয়ন্ত্রণে বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার বনসংলগ্ন উত্তর রাজাপুর গ্রামের ২-৩শ’ লোকসহ শরণখোলা ও মোরেলগঞ্জের ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট কাজ করে।

    ajkerograbani.com

    এর আগে গত বছরের ২৮ মার্চ থেকে শুরু করে চাঁদপাই রেঞ্জে মাত্র এক মাসে চারবার নাশকতার আগুনে কয়েক কোটি টাকার বনজ সম্পদ ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এবারও সেই একই এলাকায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা নাশকতা বলে সন্দেহ করছেন এলাকাবাসী ও খোদ সুন্দরবন বিভাগ।

    আগুন নেভানোর কাজে নিয়োজিত শরণখোলার ধানসাগর ইউপি সদস্য মো. জাকির হোসেন খান জানান, সকাল ১০টার দিকে তারা সুন্দরবনে আগুন লাগার খবর পান। পরে এলাকার ২-৩শ’ লোক নিয়ে তিনি ঘটনাস্থলে গিয়ে কলস-বালতি নিয়ে আব্দুল্লাহর ছিলায় পাশের খাল থেকে পানি নিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা চালান।

    দুপুর ২টার দিকে ডিএডি মাসুদ শেখের নেতৃত্বে শরণখোলা ও মোরেলগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছায়।

    সুন্দরবনের চাঁদপাই রেঞ্জের সহকারী বনসংরক্ষক (এসিএফ) মো. মেহেদিজ্জামান ঘটনাস্থলে অবস্থান করে আগুন নিয়ন্ত্রণ আনেন।

    তিনি জানান, বেলা ১১টার দিকে তারা আগুনের খবর পেয়ে ঘহটনাস্থলে ছুটে যান। বনকর্মীদের পাশাপাশি স্থানীয় শত শত মানুষ কলস-বালতি নিয়ে আগুন নেভানোর কাজে অংশ নেন। দুপুরে ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট এসে আগুন নেভানোর কাজে যোগ দেয়।

    ওই বন কর্মকর্তার ধারণা, এবারও নাশকতার আগুনে পুড়ছে সুন্দরবন।

    অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় তদন্ত কমিটি: এদিকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় মো. মেহেদিজ্জামানকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবন বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) মো. সাইদুল ইসলাম।

    তিনি জানান, আগুন নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। আগামী সাত কর্মদিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

    উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে চাঁদপাই রেঞ্জের ধানসাগর স্টেশনের বিভিন্ন এলাকায় নাশকতামূলক চারবার অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। এর মধ্যে ২৭ মার্চ ধানসাগর ষ্টেশনের নাংলী ক্যাম্পের সিকদারের ছিলায়, ১৩ এপ্রিল পঁচা কোরালিয়া বিলে, ১৮ এপ্রিল আবদুল্লাহর ছিলায় এবং সর্বশেষ ওই বছরের ২৭ এপ্রিল তুলতলার বিলে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

    শরণখোলা উপজেলার ধানসাগর ইউনিয়নের সুন্দরবন সংলগ্ন উত্তর রাজাপুর গ্রামের এক শ্রেণির মৌসুমী মৎস্য শিকারী সুন্দরবনে মিঠা পানির মাছের বিল তৈরি করার জন্য বনে আগুন দিয়ে থাকে।

    Facebook Comments Box

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4757