• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    হঠাৎ সব নেতা বিদেশমুখী কেন ?

    আজকের অগ্রবাণী ডেস্ক | ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৭ | ৭:০৪ অপরাহ্ণ

    হঠাৎ সব নেতা বিদেশমুখী কেন ?

    দুই নেত্রীই এখন দেশের বাইরে। জাতিসংঘের অধিবেশনে যোগদানের জন্য যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করছেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা। ফিরছেন আগামী মাসের শুরুতেই। আর পরিবারের সঙ্গে সাক্ষাৎ ও চিকিৎসার কথা বলে লন্ডনে অনির্দিষ্টকালের জন্য অবস্থান করছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। একই সঙ্গে দুই দলের শীর্ষ পর্যায়ের অনেক নেতাই বিদেশে অবস্থান করছেন। আবার অনেক নেতা বর্তমানে দেশে অবস্থান করলেও শিগগিরই বিদেশ সফরে যাচ্ছেন।


    জাতিসংঘের ৭২ তম অধিবেশনে যোগ দিতে গত ১৬ সেপ্টেম্বর যুক্তরাষ্ট্রের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন প্রধানমন্ত্রী। আগামীকাল ২১ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশের পক্ষে জাতিসংঘের বক্তৃতা দেবেন তিনি। পাশপাশি সেখানে অনুষ্ঠিত বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে অংশ নেবেন শেখ হাসিনা। এছাড়া প্রধানমন্ত্রী সেখানে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রপ্রধানদের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকেও অংশ নেবেন। জাতিসংঘের অধিবেশন শেষে ২৫ সেপ্টেম্বর ভার্জিনিয়া যাবেন প্রধানমন্ত্রী। সেখানেই ছেলে সজীব ওয়াজেদ জয়ের পরিবারের সঙ্গে কিছুদিন অবসর কাটাবেন তিনি। আগামী ২৮ সেপ্টেম্বর ছেলের পরিবারের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী তাঁর জন্মদিন পালন করবেন। এক সপ্তাহের অবসর কাটিয়ে আগামী ২ অক্টোবর দেশের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।


    বেশ কিছুদিন ধরেই যুক্তরাজ্যে অবস্থান করছেন জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। তাঁর পরিবার থাকে লন্ডনে। পরিবারকে সময় দিতেই সৈয়দ আশরাফের এই লন্ডন অবস্থান।

    প্রধানমন্ত্রী যুক্তরাষ্ট্রে যাওয়ার পরই চীন সফরে গেছে আওয়ামী লীগের একটি প্রতিনিধি দল। চীনা কমিউনিস্ট পার্টির আমন্ত্রণে গত সোমবার রাত সোয়া ১২টার দিকে একটি ফ্লাইটে চীনের রাজধানী বেজিংয়ের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করেন তাঁরা। চীন সফররত ১৯ সদস্যের প্রতিনিধি দলে নেতৃত্ব দিচ্ছেন দলটির সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য লে. কর্নেল (অব) মুহাম্মদ ফারুক খান। আর সঙ্গে রয়েছেন সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী দীপু মনিও। সেখানে ২৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত অবস্থানকালে বিভিন্ন কর্মসূচিতে অংশ নেবে দলটি। চীন থেকে আওয়ামী লীগ নেতাদের ফেরার কথা ২৮ সেপ্টেম্বর।

    ভারতের ক্ষমতাসীন জনতা পার্টির (বিজেপি) আমন্ত্রণে আগামী মাসে ভারত সফরে যাচ্ছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। সফরে তিনি আওয়ামী লীগের একটি প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেবেন। তবে এখন পর্যন্ত সফরের তারিখ চূড়ান্ত হয়নি। দলে কেন্দ্রীয় কমিটির আরও কয়েকজন নেতা থাকবেন বলেও জানা গেছে। সফরকালে দুই দলের নেতাদের মধ্যে পারস্পরিক বিষয়াদি নিয়ে আলোচনা হবে।

    এদিকে চিকিৎসা ও পরিবারের সঙ্গে সাক্ষাতের কথা জানিয়ে গত ১৫ জুলাই লন্ডন যান বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। সেখানে বেগম জিয়া তাঁর ছেলে ও বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বাসায় ওঠেন। রাজনৈতিক আশ্রয়ে গত নয় বছর ধরে লন্ডনে অবস্থান করছেন তারেক। তবে লন্ডনে পৌছার পর থেকেই বিভিন্ন রহস্যের আবরণে ঢাকা পড়ে বেগম জিয়ার সফর। লন্ডনে যাওয়ার তিন সপ্তাহ পর একটি শপিং মলে তাঁকে দেখা যায়। এর পর থেকেই লোকচক্ষুর অন্তরালে বেগম জিয়া। কোথায় তাঁর চিকিৎসা হচ্ছে, কী চিকিৎসা হচ্ছে এ নিয়ে কোনো সদুত্তর পাওয়া যায়নি। এমনকি যুক্তরাজ্য বিএনপির অনেক নেতাও এ নিয়ে অন্ধকারে। বেগম জিয়া কবে দেশে ফিরছেন তা কেউ বলতে পারছেন না। তবে শিগগিরই যে ফিরছেন না তা অনেকটাই নিশ্চিত।

    রাজনৈতিক আশ্রয়ে দীর্ঘদিন ধরেই যুক্তরাজ্যে বসবাস করছেন তারেক জিয়া ও তাঁর পরিবার। শিগগিরই তিনি দেশে ফিরছেন না। অতি সম্প্রতি উগ্রাবাদী বিভিন্ন সংশ্লিষ্টতায় তারেক জিয়া দেশটির নিরাপত্তা বাহিনীর নজরদারিতে আছেন বলেও জানা গেছে।

    এছাড়া বিএনপি নেতা আবদুল আউয়াল মিন্টুও এই মুহূর্তে লন্ডনে অবস্থান করছে। এছাড়াও আগে থেকে বিভিন্ন দেশে অবস্থানরত কয়েক বিএনপি নেতা বর্তমানে লন্ডনে জমায়েত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

    এদিকে জাতীয় পার্টির প্রেসিডেন্ট হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ অতিসম্প্রতি ভারত সফর করে এসেছেন। তাঁর ভারত সফরের উদ্দেশ্য সম্পর্কে অতিবিস্তারিত জানা গেলেও তিনি যে রাজনৈতিক কারণেই এই সফরে গিয়েছিলেন তা অনেকটাই নিশ্চিত।

    Facebook Comments

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫
    ১৬১৭১৮১৯২০২১২২
    ২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
    ৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4673