• শিরোনাম



    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...


    ১৩ হাজার বছরের পুরনো ট্যাবলেটে ধূমকেতু আঘাতের ইতিহাস!

    অনলাইন ডেস্ক | ৩০ এপ্রিল ২০১৭ | ৯:৪৮ পূর্বাহ্ণ

    ১৩ হাজার বছরের পুরনো ট্যাবলেটে ধূমকেতু আঘাতের ইতিহাস!

    প্রাচীন আমলের একটি ট্যাবলেট নিয়ে উত্তেজনায় রয়েছেন ইউনিভার্সিটি অব এডিনবার্গের বিশেষজ্ঞরা। ১৩ হাজার বছরের পুরনো ওই ট্যাবলেটে অনেক কিছু লেখা রয়েছে। এর পাঠোদ্ধার করতে সমর্থ হয়েছেন তারা। পাথরখণ্ডটি ‘ভলচার স্টোন’ নামে পরিচিত। এটি খ্রিস্টপূর্ব ১০৯৫০ অব্দের সময়কার। বিজ্ঞানীদের ধারণা, ওই সময় যে ধূমকেতু আঘাত হেনেছিল পৃথিবীতে, তার ইতিহাস লেখা রয়েছে এতে।


    ট্যাবলেটটি পাওয়া গেছে তুরস্কের ‘গোবিকলির তেপে’ মন্দিরে। ওই মন্দিরটিও ১৩ হাজার বছরের পুরনো। সেখানে মৃতদের উদ্দেশ্যে পূজা-অর্চনা কর হতো। এটা পবিত্র স্থান হিসাবে মানতো মানুষ। প্রাচীন আমলের মানমন্দিরের একটি নিদর্শন হিসাবে টিকে রয়েছে এখনও।

    ajkerograbani.com

    ভলচার স্টোনে বিভিন্ন ধরনের প্রাণীর ছবি খোদাই করে আঁকা হয়েছে। গোটা পাথরের নির্দিষ্টি স্থানে প্রাণীগুলো আঁকানো রয়েছে। খ্রিস্টপূর্ব ১০৯৫০ অব্দে ধূমকেতুর আঘাতের ঘটনার ২০০০ বছর আগেকার অবস্থা ও চিত্র এই পাথরে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। দীর্ঘদিন ধরেই এর পাঠোদ্ধারে কাজ করে যাচ্ছেন বিজ্ঞানীরা। মার্টিন সোয়েটম্যান এবং তার সহকর্মীরা পাথরটি নিয়ে কাজ শুরুর আগ পর্যন্ত তা রহস্যময় হয়েই ছিল। প্রথমবারের মতো তারাই ওই পাথরে অঙ্কিত চিহ্ন আর প্রাচীন জ্যোতির্বিজ্ঞানের অর্থ উদ্ধারে সফলভাবে এগিয়েছেন।

    কম্পিউটারের মাধ্যমে বিশেষজ্ঞদের তত্ত্ব-উপাত্ত যখন সেই সময়কার সৌর জাগতিক অবস্থার সঙ্গে বিশ্লেষণ করা হলো, তখন একই সময়ের ধূমকেতুর আঘাতের ইতিহাসের সঙ্গে পাথরের আঁকিবুকির মিল পাওয়া গেল। এই পাথর এক স্বল্প সময়ের বরফ যুগের কথাই বলছে। ধূমকেতুর আঘাতের কারণে পৃথিবীর পরিবেশ বদলে যাওয়ার বিষয়টি উঠে এসেছে এখানে। ওই বরফ যুগ ‘ইয়ংগার ড্রায়াস’ নামে পরিচিত। এর স্থায়ীত্ব ছিল ১০০০ বছরের মতো। প্রথম নিয়োলিথিক সভ্যতা ওই সময়টাতেই মাথাচাড়া দেয়। ইয়ংগার ড্রায়াস সেই সময়টাকে বোঝায়, যে সময় বিশাল লোমের দানব ম্যামোথ বিলুপ্ত হয়।

    আসলে প্রাচীন আমলের মানুষদের বড় বড় প্রাকৃতিক দুর্যোগের কথা নিজস্ব ভাষায় লিখে রাখা ও তা সংরক্ষণ করার বিস্ময়কর সামর্থ্য ছিল।

    ওই ট্যাবলেটের কার্বন ডেটিং পরীক্ষার মাধ্যমে দেখা গেছে, ভলচার স্টোন খ্রিস্টপূর্ব ১০৯৫০ অব্দের সময়কার। সোয়েটম্যানের মতে, প্রাচীন সভ্যতার অন্দরমহলে প্রবেশের ক্ষেত্রে প্রাচীন পুরাতত্ত্বের অবদানের প্রমাণ এটাই প্রথম নয়। আরো অনেক গুহার চিত্রকর্ম, তৈজসপত্র ও বিভিন্ন প্রাণীদের আঁকিবুকি প্রমাণ দেয় যে, জ্যোতির্বিজ্ঞান আসলে প্রাচীন এক বিষয়।

    Facebook Comments Box

    কোন এলাকার খবর দেখতে চান...

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    বিয়ে করাই তার নেশা!

    ২১ জুলাই ২০১৭

    কে এই নারী, তার বাবা কে?

    ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
    ১০১১১২১৩১৪
    ১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
    ২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
    ২৯৩০৩১  
  • ফেসবুকে আজকের অগ্রবাণী


  • Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/ajkerogr/public_html/wp-includes/functions.php on line 4757