বুধবার ৫ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২০শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বঙ্গবন্ধু রেল জাদুঘর এখন যশোরে

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   শুক্রবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ | প্রিন্ট

বঙ্গবন্ধু রেল জাদুঘর এখন যশোরে

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ভ্রাম্যমাণ রেল জাদুঘর কয়েকটি জেলা ঘুরে এখন যশোরে অবস্থান করছে।

বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা থেকে যশোরবাসীর জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে রেল জাদুঘরটি। প্রথম দিনেই নজর কেড়েছে জাদুঘরটি। এটি আগামী ১৮ সেপ্টেম্বর রোববার রাত ১টা পর্যন্ত জনসাধারণের জন্য উন্মুক্ত থাকবে। যেকেউ যশোর রেলস্টেশনে এসে বিনামূল্যে জাদুঘরটি দেখার সুযোগ পাচ্ছেন। জাদুঘর প্রদর্শনীর সময় প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১টা এবং বিকেল ৪টা থেকে রাত ১টা পর্যন্ত।

এর আগে, গত ১ আগস্ট গোপালগঞ্জ রেলস্টেশন থেকে এ ব্রডগেজ রেলওয়ে জাদুঘরটির উদ্বোধনের পর এটি বিভিন্ন জেলার রেলস্টেশন ঘুরে এখন যশোর রেলস্টেশনে প্রদর্শনীর জন্য উন্মুক্ত রাখা হয়েছে। যশোরে প্রথম দিনে এ রেল জাদুঘরের ভেতরে সময় নিয়ে ঘুরে ঘুরে দেখেছেন ছোট শিশু, বয়স্ক থেকে শুরু করে সব শ্রেণি-পেশার মানুষ।

যশোর রেলস্টেশন কর্তৃপক্ষ জানায়, যশোরে প্রথম দিনের প্রদর্শনীতে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত প্রায় এক হাজার দর্শনার্থী রেল জাদুঘরটির ভেতর ঘুরে দেখেছেন।

রেল কর্তৃপক্ষ জানায়, মুজিব জন্মশতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে নতুন প্রজন্মের কাছে বঙ্গবন্ধু সম্পর্কে জানান দিতে ব্যতিক্রমী এ আয়োজনের উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। এ জাদুঘরে ১৯২০ সাল থেকে ১৯৭৫ সাল পর্যন্ত ১২টি গ্যালারির মাধ্যমে বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও বাংলাদেশের ইতিহাস তুলে ধরা হয়েছে। প্রতিটি গ্যালারিতে ডিসপ্লের পাশাপাশি তৎকালীন প্রেক্ষাপটের ধারাবর্ণনা দেওয়া হচ্ছে। ভিডিও চিত্রের সঙ্গে ধারাবর্ণনা শুনে নতুন প্রজন্ম ইতিহাস জানতে পারবে। জাদুঘরে টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর পৈতৃক বাড়ি, সমাধিসৌধ, জাতীয় স্মৃতিসৌধ, পাকিস্তান বাহিনীর আত্মসমর্পণ, বঙ্গবন্ধুর ব্যবহৃত প্রতীকী চশমা, মুজিব কোট, পাইপ, মুজিব নগর স্মৃতিসৌধ, কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার, কারাগারের রোজনামচা, বিজয়স্তম্ভ কমলাপুর ও মুজিব শতবর্ষের লোগো প্রদর্শিত হচ্ছে।

রেল জাদুঘর দেখতে আসা ষাটোর্ধ্ব আজমল শেখ বলেন, আমরা ছোট থাকতে মুক্তিযুদ্ধ দেখেছি। সমাবেশে বঙ্গবন্ধুকে দেখেছি। তৎকালীন সময়ের অনেক ইতিহাস সম্পর্কে জানি। কিন্তু নতুন প্রজন্ম পূর্বের অনেক ইতিহাস সম্পর্কে জানে না। তাদের জন্য এ রেল জাদুঘরটি বিশেষ ভূমিকা পালন করবে।

শহরের রেলগেট এলাকার সালেহা বেগম নামে এক বৃদ্ধা বলেন, সকালে ছেলে অফিস থেকে ফোন করে বলেছে যে, রেল জাদুঘর যশোর স্টেশনে এসেছে, সেখানে বিকেলে বাচ্চাদের নিয়ে যান আম্মা। তাই নাতি-নাতনিদের নিয়ে রেল জাদুঘর দেখাতে আসলাম। এখানে বঙ্গবন্ধুর শৈশবকাল সম্পর্কে বাচ্চারা অনেক ধারণা পেয়েছে। প্রশংসনীয় উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ।

দশম শ্রেণির ছাত্র রাব্বি বলেন, আমরা মুক্তিযুদ্ধ দেখিনি এবং বঙ্গবন্ধুকেও দেখিনি। আমরা বইয়ের পাতায় তার সম্পর্কে অনেক পড়েছি। ঢাকা শহরে গিয়ে জাদুঘর দেখার সামর্থ্য অনেকেরই নেই। তাদের জন্য এ রেল জাদুঘর একটি অসাধারণ মাধ্যম বঙ্গবন্ধুকে জানার। এটি দেখতে দূরে কোথায় যাওয়া লাগছে না, বাড়ির কাছে রেলস্টেশনে পৌঁছে যাচ্ছে এ জাদুঘরটি।

যশোর রেলস্টেশন মাস্টার আয়নাল হক বলেন, যশোর রেলস্টেশনে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব রেল জাদুঘরটি বৃহস্পতিবার সকাল থেকে উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে। সকাল থেকেই উল্লেখযোগ্য উপস্থিতি ছিল। আগামী চারদিন এটি যশোরে প্রদর্শিত হবে। যেকেউ স্টেশনে এসে এ জাদুঘর বিনামূল্যে ঘুরে দেখতে পারবেন।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৩:১৩ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

ajkerograbani.com |

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০  
সম্পাদক ও প্রকাশক
মুহা: সালাহউদ্দিন মিয়া
সম্পাদকীয় কার্যালয়

২ শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণি, মগবাজার, ঢাকা-১২১৭। সম্পাদক কর্তৃক তুহিন প্রেস, ২১৯/২ ফকিরাপুল (১ম গলি), মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত।

ফোন : ০১৯১৪৭৫৩৮৬৮

E-mail: [email protected]