বুধবার ৩০শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

যে ব্রিজ আপনাকে নেবে সমুদ্রের মাঝখানে

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ | প্রিন্ট

যে ব্রিজ আপনাকে নেবে সমুদ্রের মাঝখানে

কুমিরা ঘাট। চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলার পর্যটন স্পটগুলোর একটি। কুমিরা ইউনিয়নের অন্তর্গত এ এলাকাটি শুধু উপজেলা নয়, দূর-দূরান্ত থেকে আসা পর্যটকদের কাছেও একটি পছন্দের স্থান।

প্রকৃতির মনোরম দৃশ্য অবলোকন করেন পর্যটকরা। ছবি: ডেইলি বাংলাদেশএটি মূলত নৌ-পথে কুমিরা থেকে সন্দ্বীপ যাতায়াতের জন্য ব্যবহৃত ঘাট। এখানে যাত্রীদের পারাপারের জন্য রয়েছে বিশাল দৈর্ঘ্যের একটি ব্রিজ। বিকেল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত ব্রিজটিতে দাঁড়িয়ে প্রকৃতির মনোরম দৃশ্য অবলোকন করেন পর্যটকরা। বিশেষ করে ব্রিজটি থেকে সূর্যোদয় ও সূর্যাস্তের দৃশ্য বেশ উপভোগ্য। এছাড়া জোয়ারের সময় ব্রিজের ওপর দাঁড়ালে মনে হয় যেন দাঁড়িয়ে আছেন সমুদ্রের মাঝখানে।

প্রকৃতির মনোরম দৃশ্য অবলোকন করেন পর্যটকরা। ছবি: ডেইলি বাংলাদেশব্রিজ থেকে দেখা যায় শিপইয়ার্ডে দাঁড়িয়ে থাকা বিশাল বিশাল জাহাজ। দেখা যায় সমুদ্রগামী ফিশিং বোটে জেলেদের ব্যস্ততা। স্থানীয়দের কাছে এটি কুমিরা-সন্দ্বীপ ফেরীঘাট ব্রিজ, ঘাটঘর ব্রিজ, কুমিরা ব্রিজ ইত্যাদি নামে পরিচিত। ব্রিজের শেষ প্রান্ত থেকে পাওয়া যায় বোট। যা দিয়ে ঘুরে আসা যায় সমুদ্রের মাঝ থেকে। সন্দ্বীপ যেতে এ পথটিকেই বেছে নেন অধিকাংশ মানুষ।

প্রকৃতির মনোরম দৃশ্য অবলোকন করেন পর্যটকরা। ছবি: ডেইলি বাংলাদেশকুমিরা ঘাটে যাবেন যেভাবে: ঢাকা থেকে কুমিরা ঘাট দেখতে হলে প্রথমে যেতে হবে ছোট কুমিরা বাজার। সেখান থেকে রয়েছে অটোরিকশা। অটোরিকশায় সরাসরি যাওয়া যাবে কুমিরা ঘাটে।

ঢাকা থেকে ছোট কুমিরা: ঢাকার সায়েদাবাদ, ফকিরাপুল, আরামবাগ, মহাখালীসহ বিভিন্ন এলাকা থেকে চট্টগ্রামগামী এসি-ননএসি বাস পাওয়া যায়। এসব বাসে খুব সহজেই যাওয়া যাবে ছোট কুমিরা।

প্রকৃতির মনোরম দৃশ্য অবলোকন করেন পর্যটকরা। ছবি: ডেইলি বাংলাদেশএছাড়া ঢাকা থেকে চট্টগ্রামগামী আন্তঃনগর ট্রেনে গিয়ে নামতে হবে কুমিরা রেলস্টেশনে। সেখান থেকে অটোরিকশায় খুব সহজেই যাওয়া যাবে ছোট কুমিরা বাজার কিংবা কুমিরা ঘাটে।

চট্টগ্রাম রেলস্টেশনে নামলে সেখান থেকেও বাসে যাওয়া যাবে ছোট কুমিরা। তবে কুমিরা রেলস্টেশনটি কুমিরা ঘাটের খুব কাছেই। ফলে স্টেশনটিতে নেমে যাওয়া ভালো।

কোথায় থাকবেন
বড় কুমিরা বাজারে রাত্রিযাপনের জন্য একাধিক মাঝারি মানের হোটেল রয়েছে। এছাড়া উন্নতমানের হোটেলে থাকতে চাইলে যেতে হবে চট্টগ্রাম শহরের অলংকার কিংবা আগ্রাবাদ এলাকায়। এছাড়াও জিইসির মোড়, স্টেশন রোড ও নিউমার্কেট এলাকায় একাধিক উন্নতমানের হোটেল রয়েছে।

দুপুরের খাবার ও রাতের খাবারের জন্য বড় কুমিরা বাজারেই একাধিক মাঝারি মানের খাবারের হোটেল রয়েছে। এর মধ্যে দু’য়েকটির বেশ সুনাম রয়েছে।

আরো যা দেখতে পারেন
কুমিরা ঘাট ছাড়াও সীতাকুণ্ডের পর্যটন এলাকাগুলোর মধ্যে আরো রয়েছে- গুলিয়াখালী সমুদ্র সৈকত, সীতাকুণ্ড ইকোপার্ক, বাঁশবাড়িয়া সমুদ্র সৈকত, আকিলপুর সমুদ্র সৈকত, খৈয়াছড়া ঝরনা, নাপিত্তাছড়া ঝরনা ইত্যাদি।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৯:০৩ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০  
সম্পাদক ও প্রকাশক
মুহা: সালাহউদ্দিন মিয়া
সম্পাদকীয় কার্যালয়

২ শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণি, মগবাজার, ঢাকা-১২১৭। সম্পাদক কর্তৃক তুহিন প্রেস, ২১৯/২ ফকিরাপুল (১ম গলি), মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত।

ফোন : ০১৯১৪৭৫৩৮৬৮

E-mail: [email protected]