সোমবার ৩০শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ | ১৬ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কুবির হলে শিক্ষার্থীর গায়ে হলুদ

কুবি প্রতিনিধি:   |   বৃহস্পতিবার, ১৭ নভেম্বর ২০২২ | প্রিন্ট

কুবির হলে শিক্ষার্থীর গায়ে হলুদ

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) হলের ইতিহাসে এবারই প্রথম এক শিক্ষার্থীর গায়ে হলুদের আয়োজন করা হয়েছে। বুধবার (১৬ নভেম্বর) শেখ হাসিনা হলের গেইম কক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের শিক্ষার্থী নাইমুন নাহার লিলির বিয়ে উপলক্ষে এই গায়ে হলুদের আয়োজন করা হয়।

এ আয়োজনে অংশ নেন লিলির বান্ধবীরা ও হলের সিনিয়র-জুনিয়র সকল শিক্ষার্থীরা। তার পরিবার থেকে এই অনুষ্ঠানে অংশ নেয় তার ছোট দুই বোন। তবে এই গায়ে হলুদের আয়োজন ছিল খুবই সাদামাটা। হলের গেইম কক্ষের রুমের একটি দেয়ালের সামনে বিছানার চাদর বসিয়ে ঝোলানো হয় হলুদ-গোলাপী পর্দা, জ্বালানো হয় মরিচবাতি। সামনে রাখা হয় কয়েক জাতের ফল আর একটা থালায় সাজিয়ে রাখা হয় বাঁটা হলুদ ও দূর্বাঘাস। গ্রাম-বাংলার চিরায়ত হলুদের মতোই নাচ-গানে পুরো আয়োজন করেছেন এই হলের শিক্ষার্থীরা, তাদের সহপাঠী লিলিকে বরণ করা জন্যে। অনুষ্ঠান উপলক্ষে প্রায় সকলেই পরিধান করেছিলো হলদে শাড়ি। নাইমুন নাহার লিলি কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের স্নাতক ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী। তাঁর গ্রামের বাড়ি কুমিল্লার মনোহরগঞ্জের হাতিয়ামুড়ি। যার সঙ্গে তাঁর বিয়ে হচ্ছে তিনি একই উপজেলার সৌদি প্রবাসী মাকসুদুর রহমান। আগামী শুক্রবার (১৮ নভেম্বর) পারিবারিকভাবে ধর্মীয় রীতি অনুসারে নিজ বাড়িতে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হবে।

হলে গায়ে হলুদ অনুষ্ঠানের বিষয়ে সদ্য বিয়ের পীড়িতে বসতে যাওয়া লিলি আনন্দ প্রকাশ করে বলেন, হুট করেই ফ্যামিলিগতভাবে বিয়ে ঠিক হয় তাঁর। সল্প সময়ের প্রস্তুতির কারণে বাড়িতে খুব ছোট পরিসরেই অনুষ্ঠান হবে বলে ঠিক হয়েছিলো৷ কিন্তু, লিলির সবসময়ই স্বপ্ন ছিলো তাঁর বিয়েটা হবে এমন পরিসরে যেখানে বন্ধু-বান্ধব, ক্লাসমেট সবাই উপস্থিত থাকবে৷

তিনি আরো বলেন, পরিস্থিতির কারণে আমার মনে হয়েছিলো আমার এ স্বপ্নটা মনে হয় পূরণ হবে না। তখন আমার রুমমেট কানিজ আপু বললো যে আমরা হলেই তোর হলুদটা দিয়ে দেই। তোর বিয়েতে ফ্রেন্ড এবং ক্যাম্পাসের সবাইকে দাওয়াত দেয়ার ব্যাবস্থা করি তাহলে। পরে আমার বাকি রুমমেট বুশরা, পারভীনরা মিলে এ উদ্যোগ নেয়। আপুরা এতোটা আদর-ভালোবাসা দিয়ে এ আবদারটা পূরণ করে নিবে আমি আসলেই ভাবিনি। লিলির রুমমেট পরিসংখ্যান বিভাগের শিক্ষার্থী কানিজ ফাতেমা সুমি বলেন, আমরা আয়োজন করার আগে ভাবিনি আসলে যে এটাতে এতো সাড়া পাবো৷ প্রথমে ভেবেছিলাম যে আমরা রুমের সবাই মিলেই ওর হলুদ করবো। পরে যখন হলের আপুদের জানালাম তারা বললো যে তারা যথাসম্ভব সাপোর্ট করবে অ্যারেঞ্জমেন্টের জন্য, আমরা যাতে প্রোগ্রামটা করি এবং হলের সবাইকেই দাওয়াত দিয়ে করি৷ তারপর একদিনের মাঝেই সকল প্রস্তুতি নেওয়া হলো৷ অন্য হল থেকে, মেস থেকে মেয়েরা এবং লিলির বন্ধুরা সকলেই এসেছে বলে জানান তিনি৷

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৫:২৯ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ১৭ নভেম্বর ২০২২

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক ও প্রকাশক
মুহা: সালাহউদ্দিন মিয়া
সম্পাদকীয় কার্যালয়

২ শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণি, মগবাজার, ঢাকা-১২১৭। সম্পাদক কর্তৃক তুহিন প্রেস, ২১৯/২ ফকিরাপুল (১ম গলি), মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত।

ফোন : ০১৯১৪৭৫৩৮৬৮

E-mail: [email protected]