মঙ্গলবার ২৫শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

চুলে পুষ্টি দেওয়ার ঘরোয়া উপায়

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   শুক্রবার, ৩১ মার্চ ২০২৩ | প্রিন্ট

খুব স্বাভাবিক নিয়ম হলো, চুলের যত্নে তেল ব্যবহার করা। তেল চুলের আর্দ্রতা বজায় রাখে এবং তেলকে স্বাস্থ্যকর করতে সাহায্য করে। যদিওবা অনেকেই চুলে তেল লাগাতে পছন্দ করেন না। এক্ষেত্রে তেলের পরিবর্তে কিছু জিনিস ব্যবহার করা যেতে পারে। যার সাহায্যে তেল ছাড়াও চুলকে ময়েশ্চারাইজড রাখা সম্ভব।

দই- পুষ্টিগুণে ভরপুর দই চুলের জন্য প্রাকৃতিক কন্ডিশনার হিসেবে ব্যবহৃত হয়। এক্ষেত্রে চুলের ডিপ কন্ডিশনিংয়ের জন্য মাথার ত্বকে এবং চুলে ভালো করে দই লাগাতে হবে। এবার কিছুক্ষণ পর শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলতে হবে। এতে চুলের আর্দ্রতা বজায় থাকবে এবং চুলের উজ্জ্বলতাও বাড়বে।

কলার হেয়ার মাস্ক- কলায় থাকা অ্যান্টি-মাইক্রোবিয়াল উপাদান চুলকে খুশকিমুক্ত রাখতে কাজ করে। অন্যদিকে, কলা চুলের জন্য সেরা ময়েশ্চারাইজিং এজেন্ট হিসাবে বিবেচিত হয়। তাই চুল সুস্থ রাখতে কলার হেয়ার মাস্ক তৈরি করে চুলে লাগিয়ে এক ঘণ্টা পর চুলে শ্যাম্পু করে ধুয়ে ফেলতে হবে। এটি আপনার চুলকে ময়েশ্চারাইজড এবং নরম রাখবে।

মধুর সাহায্য নিন- চুলের আর্দ্রতা ধরে রাখতে চুলের যত্নে মধু ব্যবহার করতে হবে। এক্ষেত্রে সমপরিমাণ মধু ও পানি মিশিয়ে চুলে লাগাতে হবে। তারপর ২০ মিনিট পর পরিষ্কার পানি দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলতে হবে। এটি চুলকে প্রাকৃতিকভাবে সিল্কি এবং চকচকে করে তুলবে।

অ্যালোভেরা- ঔষধি উপাদানে ভরপুর অ্যালোভেরা চুলকে হাইড্রেটেড রাখতে সাহায্য করে। এক্ষেত্রে অ্যালোভেরা জেল সরাসরি চুলে লাগাতে হবে এবং ৩০ মিনিট পর চুলে শ্যাম্পু করতে হবে। সেই সঙ্গে শ্যাম্পু করার পর চুলে কন্ডিশনার লাগাতে ভুলবেন না। এতে চুলের স্বাস্থ্য ঠিক থাকবে এবং চুলের অনেক সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যাবে।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৬:০৫ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ৩১ মার্চ ২০২৩

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক ও প্রকাশক
মুহা: সালাহউদ্দিন মিয়া
সম্পাদকীয় কার্যালয়

২ শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণি, মগবাজার, ঢাকা-১২১৭। সম্পাদক কর্তৃক তুহিন প্রেস, ২১৯/২ ফকিরাপুল (১ম গলি), মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত।

ফোন : ০১৯১৪৭৫৩৮৬৮

E-mail: [email protected]