সোমবার ১৭ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

‘প্রেম-বিয়ে’ নিয়ে মনগড়া কথা লিখলে ফারিণের হুমকি

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   বৃহস্পতিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৩ | প্রিন্ট

‘প্রেম-বিয়ে’ নিয়ে মনগড়া কথা লিখলে ফারিণের হুমকি

ব্যক্তিজীবন নিয়ে মনগড়া গল্প প্রকাশ করলে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার হুমকি দিয়েছেন ছোটপর্দা ও ওটিটি প্ল্যাটফর্মের অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেত্রী তাসনিয়া ফারিণ। সম্প্রতি অভিনেতা তাহসান খান ও ফারিণের ‘প্রেম ও সংসার’ নিয়ে বেশ কয়েকটি অনলাইন মাধ্যমে খবর প্রচার করা হয়। ফারিণ ও তাহসান এই প্রচারকে মিথ্যা দাবি করেছেন। আর এমন প্রচার করা হলে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানালেন এই অভিনেত্রী।

বুধবার (১৯ এপ্রিল) সন্ধ্যায় নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে অভিনেত্রী লেখেন, সাংবাদিক ভাই-বোনদের আমি শ্রদ্ধা করি। সম্মানের চোখে দেখি। তাদের সবাইকে আমার পেশাদার জীবনের অংশ মনে করি। সাংবাদিকতা আমার চোখে মহৎ পেশা। কিন্তু কিছু সাংবাদিক যাচাই না করে মনগড়া তথ্য ছড়িয়ে দিলে ভীষণ কষ্ট লাগে। এটাই আমার এখনকার অনুভূতি।

তিনি আরো লেখেন, কষ্ট নিয়ে বলতে হচ্ছে- কোনো সাংবাদিক, নিউজ মিডিয়া এবং অনলাইন মিডিয়া যদি ভিত্তি, প্রমাণ, উৎস বা তথ্য ছাড়া আমাকে জড়িয়ে মিথ্যা, ভ্রান্ত, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত কিংবা অবমাননাকর সংবাদ প্রকাশ করে, যার কারণে আমার ইমেজের ওপর নেতিবাচক প্রভাব পড়ে, তাহলে আমি আইনি ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হবো।

তার সেই পোস্টে আরো লিখেন- আমি বরাবরই চুপচাপ কাজ করেছি। আমার ব্যক্তিজীবন সবসময় লাইমলাইটের বাইরে রাখতে পছন্দ করি। খুব কম মানুষই ব্যক্তিগত ফারিণকে চেনেন। কিছু না বলার অর্থ এই নয় যে, কিছু বলার ক্ষমতা আমার নেই। বাকস্বাধীনতার অপব্যবহার রোধে আমার যা করণীয় তা করবো। আমার ব্যক্তিজীবন নিয়ে মনগড়া গল্প ছড়ানোর অধিকার আমি কাউকে দেইনি। কেউ সেটা করলে আমি সহ্য করবো না। সম্পূর্ণ কাল্পনিক একটা বানোয়াট গল্পের ব্যাখ্যা দেওয়ার প্রয়োজন বোধ করি না আমি। আমার ভক্ত ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের বলতে চাই, আমার ব্যক্তিজীবন নিয়ে জানানোর মতো কোনো খবর এই মুহূর্তে নেই।

জানা গেছে, সম্প্রতি কয়েকটি সংবাদমাধ্যমে তাহসান-ফারিণের ‘প্রেম-বিয়ের’ খবর প্রকাশ হয়। সেটি সোশ্যাল হ্যান্ডেলে ভাইরাল হয়। তবে এর সূত্রপাত সাম্প্রতিক নয়, ২০২১ সাল থেকে। সে বছর ভালোবাসা দিবসে তাহসান-ফারিণ জুটিবদ্ধ হয়ে অভিনয় করেন ‘কমলা রঙের রোদ’ নামের একটি নাটকে। এটি নির্মাণ করেন শিহাব শাহীন। এতে তারা স্বামী-স্ত্রীর ভূমিকায় অভিনয় করেন। এরপর এটির সিকুয়েল নির্মিত হয় ‘কমলা রঙের রোদ ২’ নামে। মূলত সেখান থেকেই দুই দফায় বিভিন্ন পত্রিকায় খবর প্রকাশ হয় ‘তাহসান-ফারিণের সংসার’ শিরোনাম দিয়ে! ছড়ায় গুঞ্জন।

বিষয়টি নিয়ে গণমাধ্যমে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন তাহসান। তিনি বলেছেন, বছর তিনেক আগে আমি ও ফারিণ একটি নাটকে অভিনয় করেছিলাম। যেটার সিকুয়েলও হয়। নাটকের গল্প সংসারজীবন নিয়ে। এরপর থেকে বেশ কয়েকটি ভুঁইফোঁড় অনলাইন মাধ্যম নাটকের গল্পটা বাস্তবের মতো করে শিরোনাম করতে থাকে। কখনো লেখা হয়, ‘সংসারজীবনে তাহসান-ফারিণ’, আবার কখনো ‘সংসার জীবনের নতুন অধ্যায়ে তাহসান-ফারিণ’। শুধু ক্লিকবিটের কারণেই বারবার আমাদের এভাবে সামনে আনা হয়। এটা খুবই বিব্রতকর।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৬:৫৩ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৩

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক ও প্রকাশক
মুহা: সালাহউদ্দিন মিয়া
সম্পাদকীয় কার্যালয়

২ শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণি, মগবাজার, ঢাকা-১২১৭। সম্পাদক কর্তৃক তুহিন প্রেস, ২১৯/২ ফকিরাপুল (১ম গলি), মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত।

ফোন : ০১৯১৪৭৫৩৮৬৮

E-mail: [email protected]