মঙ্গলবার ২১শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্রথম কর্মদিবসে সচিবালয়ে ঈদের আমেজ, উপস্থিতির হার কম

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   সোমবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৩ | প্রিন্ট

প্রথম কর্মদিবসে সচিবালয়ে ঈদের আমেজ, উপস্থিতির হার কম

ফাঁকা ঢাকার মতো প্রশাসনের প্রাণকেন্দ্র সচিবালয়েও ছুটির পর প্রথম কার্যদিবসে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের উপস্থিতির হার কম।

এবার একদিনের সাধারণ ছুটি ও ঈদুল ফিতরের তিন দিনসহ মোট চার দিনের টানা ছুটি শেষে সোমবার (২৪ এপ্রিল) থেকে খুলেছে সরকারি অফিস।

কিন্তু ঈদ আমেজ এখনও কাটেনি। প্রথম কর্মদিবস ঈদের আমেজ বিরাজ করছে। ঈদের শুভেচ্ছা ও কৌশল বিনিময়ের পর অনেককে খোস গল্প করতে দেখা যায়।

আজ সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়, স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয়ন সমবায় মন্ত্রণালয়, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, খাদ্য মন্ত্রণালয়, কৃষি মন্ত্রণালয়, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়, তথ্য অধিদপ্তর, ভূমি মন্ত্রণালয়সহ কয়েকটি মন্ত্রণালয় ঘুরে দেখা যায়, কোনো কোনো মন্ত্রণালয়ের পাঁচজন কর্মকর্তাদের মধ্যে তিনজনকে দেখা যায়। অনেক কক্ষে চেয়ার, টেবিল ফাঁকা পড়ে রয়েছে। প্রথম কর্মদিবসে সচিবালয়ে ঈদের আমেজ বিরাজ করছে। সকালে অফিসে এসে কর্মকর্তা-কর্মচারীরা একে অপরের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করছেন। কোলাকুলি করছেন একে অপরের সঙ্গে।

এছাড়া সচিবালয়ে গাড়ি রাখার স্থানগুলোও অন্যান্য দিনের তুলনায় ফাঁকা। চার নম্বর ভবনের দক্ষিণ, ছয় নম্বর ভবনের উত্তর পাশের পার্কিংয়ের স্থানসহ বিভিন্ন জায়গা ফাঁকা ছিল। সচিবালয়ের করিডোরগুলো, লিফটগুলোর সামনে ভিড় ছিল না। আর সচিবালয়ে দর্শনার্থী কক্ষটিও ছিল ফাঁকা আর গাড়ি রাখার স্থানগুলো অন্যান্য সময়ের মতো গাড়িতে ভরা ছিল না।

বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, আজ অফিস খুলেছে, তবে অনেকেই তিন দিন ঐচ্ছিক ছুটি নিয়ে টানা সাত দিনের ছুটি উপভোগ করছেন। ঈদের পরে প্রথম কর্মদিবস মোটামুটি এমনই হয়ে থাকে। খুব একটা কাজ হয় না, আবার অনেকেই ছুটিতে থাকেন। যারা অফিসে এসেছেন তাদেরও গল্প করে সময় কাটাচ্ছেন। তাই আগামী সপ্তাহ থেকে সচিবালয়ের অফিস পুরোদমে শুরু হবে।

বাণিজ্য মন্ত্রীর ব্যক্তিগত কর্মকর্তা মুহাস্মদ শহীদুল ইসলাম বলেন, প্রায় অর্ধেক কর্মকর্তা-কর্মচারী এখনও আসেনি। যারা দূরে গেছেন তারা কিছুক্ষণের মধ্যে চলে আসবেন। অনেক কর্মকর্তা ছুটিতে আছেন। ঈদের ছুটির সঙ্গে অনেকে বাড়তি ছুটি নেওয়ায় অফিস সেভাবে জমে উঠেনি। আশা করছি, দুই/একদিনের মধ্যে অফিসে কর্মতৎপরতা বাড়বে।

পল্লী-উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের হিসাব রক্ষণ অফিসার (ডি ডি ও) মো. জাহিদুল ইসলাম বলেন, অফিস আওয়ারে আগেই আসছি। মাস শেষ বেতন, ভাতা দিতে হবে তাই চলে এসেছি। আমাদের দপ্তরে পাঁচজন এর মধ্যে একজন ছুটিতে আছে।

স্থানীয় সরকার বিভাগের এক কর্মকর্তা জানান, ঈদের ছুটি বাড়িতে যাইনি। ঈদ এখানে ভালো কেটেছে। আমরা যে কক্ষে বসি সেখানে চারজনের মধ্যে এসেছে দুইজন। অন্য কলিগরা বাড়ি গেছে, ছুটিতে আমরা এখানেই কাজ করছি।

খাদ্য মন্ত্রণালয়ে প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো. গিয়াস উদ্দিন ছুটিতে আছেন।

তার অফিস সহকারী মো. নাজমুল হোসেন বলেন, উপস্থিতি কম, অনেকেই ছুটি নিয়ে বাড়ি গেছেন। কাজের তেমন চাপ নেই, তাই ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময়ে দিয়ে দিন শুরু হয়েছে।

এই সপ্তাহের বাকি কর্মদিবস এভাবেই উপস্থিতি কম থাকবে বলে জানান তিনি।

শনিবার (২২ এপ্রিল) দেশে মুসলমানদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপিত হয়েছে। ঈদ উপলক্ষে ২১, ২২, ২৩ এপ্রিল (শুক্র, শনি ও রোববার) ঈদের ছুটি ছিল।

এর আগে ২০ এপ্রিল বিশেষ ছুটি থাকায় এবার ঈদে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা টানা চার দিন ছুটি ভোগ করেছেন। তবে এবার ঈদের ছুটির দুই দিন ২১ ও ২২ এপ্রিল পড়ে সাপ্তাহিক ছুটির দিন শুক্র ও শনিবারে। ছুটি শেষে আজ অফিস শুরু হয়।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৫:১১ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৩

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক ও প্রকাশক
মুহা: সালাহউদ্দিন মিয়া
সম্পাদকীয় কার্যালয়

২ শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণি, মগবাজার, ঢাকা-১২১৭। সম্পাদক কর্তৃক তুহিন প্রেস, ২১৯/২ ফকিরাপুল (১ম গলি), মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত।

ফোন : ০১৯১৪৭৫৩৮৬৮

E-mail: [email protected]