সোমবার ২০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৬ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঘাস না পেয়ে গাঁজা খেয়ে টালমাটাল ভেড়ার পাল

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   বৃহস্পতিবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | প্রিন্ট

প্রচণ্ড তাপদাহ, প্রবল বন্যা ও ঘূর্ণিঝড় ড্যানিয়েলের আঘাতের কারণে গ্রিসের অনেক এলাকায় কৃষিজমি পুরোপুরি নষ্ট হয়ে গেছে। এতে গবাদিপশুর খাওয়ার মতো ঘাস তেমন বেশি অবশিষ্ট নেই। ঘাসের সন্ধানে খেত চষে বেড়াচ্ছে গাবাদিপশুগুলো। এ অবস্থায় তাজা ঘাস খুঁজতে খুঁজতে গাঁজাখেতে গিয়ে পড়ে একটি ভেড়ার পাল। আর না বুঝেই ভেড়াগুলো ক্ষেত থেকে ২০০ পাউন্ড মূল্যের গাঁজা গাছ খেয়ে ফেলে। এরপরই ভেড়াগুলো শুরু করে অদ্ভুত আচরণ।

সংবাদমাধ্যম ডেইলি মেইল এক প্রতিবেদনে জানায়, সেই গাঁজার গাছগুলো গ্রিনহাউসের ভেতরে ওষুধ হিসেবে চাষ করা হয়েছিল।

গাঁজাখেতের মালিক বলেন, ঘূর্ণিঝড় ড্যানিয়েলের আঘাত ও দাবদাহের কারণে তার খেতের ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। আর ‘যতটুকু বেঁচে ছিল’ তা ভেড়ার দল শেষ করে দিয়েছে।

দ্য নিউজপেপার ডট জিআর ওয়েবসাইটের খবরে বলা হয়, মধ্য গ্রিসের থেসালিতে বন্যার পানিতে প্লাবিত এলাকায় ভেড়ার পাল চষে বেড়াচ্ছিল। এরপর এগুলো অলমিরোস শহরের কাছে গ্রিনহাউসে ঢুকে পড়ে। ভেড়ার দল ১০০ কেজি গাঁজা খেয়ে ফেলে।

গাজাখেতের মালিক ওয়েবসাইটকে বলেন, ‘আমি আসলেই জানি না, হাসব নাকি কাঁদব। দাবদাহের কারণে অনেক ফসল নষ্ট হয়েছে। এরপর বন্যায় প্রায় সবকিছু হারিয়েছি।’

খেতের মালিক বলেন, ‘এখন ভেড়ার পাল গ্রিনহাউসে ঢুকে বাকি যা কিছু ছিল, সেটুকুও খেয়ে নিয়েছে। সত্যি, আমি জানি না কী বলা উচিত।’

একজন মেষপালক ভেড়ার পালের অদ্ভুত আচরণ লক্ষ করেন। কিন্তু বুঝতে পারছিলেন না, কেন ভেড়ার দল এমন আচরণ করছিল।

কর্মকর্তারা বলেন, চলতি মাসের শুরুর দিকে থেসালির ওপর দিয়ে ঝড় বয়ে যায়। এতে বিভিন্ন শহর ও গ্রাম তলিয়ে গেছে। মারা গেছে এক লাখের বেশি প্রাণী ও গবাদিপশু।

বন্যাদুর্গত হাজারো বাসিন্দাকে লাইফবোট ও হেলিকপ্টারে করে সরিয়ে নেয়া হয়েছিল। আর মাঠের ফসল ভেসে গেছে।

১৯৩০ সালের পর দেশটিতে এমন প্রবল ঘূর্ণিঝড়ের ঘটনা এটাই প্রথম। গ্রীষ্মের ভয়াবহ দাবানলের পর এই ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানে।

গ্রিসের প্রধানমন্ত্রী কিরিয়াকোস মিৎসোতাকিস বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে তার দেশ উল্লেখযোগ্য চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছে। প্রাকৃতিক এই দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য আরও ত্রাণ চালু করতে যাচ্ছেন তারা।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৬:৪১ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩

ajkerograbani.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

(237 বার পঠিত)
(204 বার পঠিত)
advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক ও প্রকাশক
মুহা: সালাহউদ্দিন মিয়া
সম্পাদকীয় কার্যালয়

২ শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণি, মগবাজার, ঢাকা-১২১৭। সম্পাদক কর্তৃক তুহিন প্রেস, ২১৯/২ ফকিরাপুল (১ম গলি), মতিঝিল, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত।

ফোন : ০১৯১৪৭৫৩৮৬৮

E-mail: [email protected]